kalerkantho

শুক্রবার । ২৪ জানুয়ারি ২০২০। ১০ মাঘ ১৪২৬। ২৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

ফ্যাশন গাইড

বরের সাজ

৫ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বরের সাজ

বিয়েতে কনের সাজপোশাক আকর্ষণের কেন্দ্রে থাকলেও কম যান না বরবাবুও। বিয়ের প্রতি পর্বে তাঁর সাজও হওয়া চাই নজরকাড়া। থাকতে হবে ট্রেন্ডের ছোঁয়াও। বাগদান, গায়েহলুদ, বিয়ে, রিসেপশন, জামাই ফেরানি—কেমন হবে বরের সাজপোশাক, জানিয়েছেন গ্রামীণ চেকের সিনিয়র এক্সিকিউটিভ (ডিজাইন) অনন্যা হক। লিখেছেন নাবীল আল জাহান

বাগদান বা আক্দ

ইদানীং বাগদানের চেয়ে আক্দই হয় বেশি। বাগদান বা আকদে ফরমাল পোশাক পছন্দ অনেকের। সে ক্ষেত্রে প্রিন্স কোট পরার চলই এখন বেশি। কিংবা স্যুট-ব্লেজার, পায়ে জুতা। পাঞ্জাবি, সঙ্গে চুড়িদার পায়জামাও পরেন কেউ কেউ। যোধপুরী সালোয়ারও এখন খুব চলছে। অনেকে কাবলিও পরেন।

পোশাক : মান্যবর

বিয়ে

শেরোয়ানি পরাটাই বিয়ের দস্তুর। রং সাধারণত সাদার মধ্যেই হয়। পার্ল হোয়াইট রং এখন বেশি চলছে। অফ হোয়াইট, সোনালি বা মেরুনও পরা যেতে পারে। ইদানীং স্লিম কাট ও সেমি লম্বার চলটাই বেশি। অনেকে অবশ্য পাঞ্জাবিও পরেন। শেরোয়ানির সঙ্গে এখন চলছে চুড়িদার ও যোধপুরী পায়জামা। অবশ্য অনেকে সাধারণ পায়জামাই পরেন। রাজস্থানি পাগড়িটা এখন ট্রেন্ড। সেটা হয় পায়জামার সঙ্গে রং মিলিয়ে। পায়ে নাগরা বা লোফার।

পোশাক : রিচম্যান

রিসেপশন

রিসেপশনে বরকে পুরোপুরি ফরমাল লুকে সাজানো হয়। আগে প্রিন্স কোট পরার চল ছিল খুব। ইদানীং থ্রিপিস স্যুটই বেশি পরছেন বর। সঙ্গে সাধারণ বা বো টাই। পায়ে ফরমাল জুতা। হাতে থাকতে হবে ঘড়ি।

পোশাক : মান্যবর

জামাই ফিরানি

জামাই ফিরানিতে বর সাজাতে পারেন ন্যাচারাল লুকে। এ সময় মূলত শ্বশুরবাড়ি থেকে উপহার দেওয়া পোশাক পরতে হয়। সাধারণত জামাইকে পাঞ্জাবি-পায়জামা ও স্যান্ডেল দেওয়া হয়। বিয়ের পর প্রথমবারের মতো শ্বশুরবাড়িতে যাওয়া হচ্ছে বলে এদিন ট্র্যাডিশনাল পোশাক পরাই ভালো।

 

মডেল : তাসকিন রহমান

পোশাক : রিচম্যান

ছবি : আবু সুফিয়ান নিলাভ

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা