kalerkantho

মঙ্গলবার । ২১ জানুয়ারি ২০২০। ৭ মাঘ ১৪২৬। ২৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

‘নগরে ১০০০ জনকে নিরাপত্তা দেয় মাত্র এক পুলিশ’

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

১২ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



চট্টগ্রাম নগরে এক হাজার মানুষের নিরাপত্তায় মাত্র একজন পুলিশ সদস্য রয়েছেন বলে জানিয়েছেন পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী। তিনি বলেন, ‘দেশের মোট জনসংখ্যার সঙ্গে বাংলাদেশ পুলিশের মোট সদস্যের অনুপাত হিসাব করলে ৮০০-৯০০ জন মানুষের জন্য মাত্র একজন পুলিশ সদস্য রয়েছেন। এটি কোনোভাবে কাম্য নয়।’

গতকাল বুধবার বিকেলে দামপাড়া পুলিশ লাইন মাঠে চট্টগ্রাম নগর পুলিশের (সিএমপি) ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন ড. জাবেদ পাটোয়ারী।

আইজিপি বলেন, ‘আশপাশের দেশের সঙ্গে তুলনা করলে দেখা যায়, সেখানে ২৫০-৩০০ জনের জন্য একজন পুলিশ সদস্য রয়েছেন। আর জাতিসংঘের হিসাবে ৪০০ জনের জন্য একজন পুলিশ সদস্য থাকার কথা। কিন্তু বাংলাদেশে সেই সংখ্যায় পৌঁছতে হলে বাংলাদেশ পুলিশকে আরো অনেক পথ পাড়ি দিতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘চট্টগ্রাম নগর পুলিশের সদস্য সংখ্যা সাত হাজার। কিন্তু নগরের জনসংখ্যা প্রায় ৭০ লাখ। সেই হিসাবে ১০০০ মানুষের জন্য রয়েছেন একজন পুলিশ সদস্য। মাত্র একজন পুলিশ সদস্য এক হাজার মানুষের নিরাপত্তা কীভাবে নিশ্চিত করবেন! এটা কী করে সম্ভব? এরপরও আমরা নিরাপত্তা দিয়ে যাচ্ছি। নগরে নিরাপদ পরিবেশ আছে বলেই নগরায়ন হচ্ছে। সম্প্রসারণ হচ্ছে। এই নিরাপদ পরিবেশই বজায় রাখতে চাই।’

জাবেদ পাটোয়ারী বলেন, ‘আমরা এখন মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছি। জনগণের সহযোগিতায় মাদককে দেশ ছাড়া করব ইনশাল্লাহ।’

নগর পুলিশ কমিশনার মো. মাহাবুবর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠান উদ্বোধন করা হয় বেলুন উড়িয়ে এবং কেক কেটে। এতে স্বাগত বক্তব্যে পুলিশ কমিশনার প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর শুভেচ্ছা জানিয়ে বলেন, ‘১৯৭৮ সালে সিএমপির যাত্রাকালে প্রতি ৩০০ জনের জন্য একজন করে পুলিশ সদস্য দায়িত্ব পালন করলেও বর্তমানে ৯০০ জন নাগরিকের জন্য একজন করে পুলিশ সদস্য দায়িত্ব পালন করেন। তবু আমরা অপরাধ নিয়ন্ত্রণে ভূমিকা রাখতে পারছি।’

অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য দেন সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন, প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. অনুপম সেন ও নগর মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী হাসিনা মহিউদ্দিন। উপস্থিত ছিলেন জাতীয় সংসদের হুইপ শামসুল হক চৌধুরী, সংসদ সদস্য এ বি এম ফজলে করিম চৌধুরী ও ওয়াসিকা আয়শা খান, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমেদ, চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের প্রশাসক এম এ সালাম, চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহাবুবুল আলম প্রমুখ। ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তাদের মধ্যে ছিলেন সিএমপির সাবেক কমিশনার আবদুল জলিল মণ্ডল, অতিরিক্ত আইজিপি ইকবাল বাহার, চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি খোন্দকার গোলাম ফারুক প্রমুখ।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা