kalerkantho

শুক্রবার । ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ৮ রবিউস সানি ১৪৪১     

‘শুদ্ধ বুদ্ধি চর্চার অন্যতম মাধ্যম বিতর্ক প্রতিযোগিতা’

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

২০ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



‘শুদ্ধ বুদ্ধি চর্চার অন্যতম মাধ্যম বিতর্ক প্রতিযোগিতা’

বিজিসি ট্রাস্ট ইউনিভার্সিটিতে বিতর্ক প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের সঙ্গে অতিথিরা। ছবি : কালের কণ্ঠ

বিজিসি ট্রাস্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ (বিজিসিটিইউবি) ডিবেটিং সোসাইটি আয়োজিত ৫ম আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় সংসদীয় বিতর্ক প্রতিযোগিতা সোসাইটির সভাপতি ও ফার্মেসি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক জয়শ্রী দাশের সভাপতিত্বে মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয় মিলনায়তনে সম্পন্ন হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন উপাচার্য ড. সরোজ কান্তি সিংহ হাজারী। বিশেষ অতিথি ছিলেন দৃষ্টি চট্টগ্রাম সহসভাপতি শহিদুল ইসলাম, বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক আ ন ম ইউসুফ চৌধুরী, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক ড. নারায়ণ বৈদ্য, রেজিস্ট্রার এ এফ এম আখতারুজ্জামান কায়সার ও ডেপুটি রেজিস্ট্রার সালাহউদ্দীন শাহরিয়ার। প্রভাষক রিদোয়ানুল হকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সহকারী অধ্যাপক ধীমান বড়ুয়া, প্রভাষক শুভাশীষ ঘোষ, প্রভাষক ঝিনুফার ইয়াছমিন। বিচারক ছিলেন দৃষ্টি চট্টগ্রাম সদস্য মুন্না মজুমদার, সুমাইয়া ইসলাম ও সাদিয়া আফরিন।

উপাচার্য অধ্যাপক সরোজ কান্তি সিংহ হাজারী বলেন, ‘শুদ্ধ বুদ্ধি চর্চার অন্যতম মাধ্যম বিতর্ক। বিতর্ক চর্চার মাধ্যমে একজন শিক্ষার্থী শুদ্ধ উচ্চারণ উপস্থাপনাসহ নিজেকে একজন শুদ্ধ মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে পারে।’

বিতর্কের বিষয় ছিল ‘প্রচলিত শিক্ষা ব্যবস্থা শিক্ষার্থীদের মানসিকতায় নতুনত্ব আনতে ব্যর্থ’ চূড়ান্ত পর্বে যুক্তিতর্কে সরকারি দল হিসেবে অংশ নিয়ে ইংরেজি বিভাগ রানার্সআপ হয়। বিরোধী দল হিসেবে অংশ নিয়ে আইন বিভাগ চ্যম্পিয়ন হয়। ফার্মেসি বিভাগের ছাত্রী তানজিয়া তাবাস্সুম তিশা শ্রেষ্ঠ বিতার্কিক নির্বাচিত হন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা