kalerkantho

সোমবার । ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১১ রবিউস সানি ১৪৪১     

বায়েজিদে ‘সবুজ উদ্যান’

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

৯ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বায়েজিদে ‘সবুজ উদ্যান’

নগরের সেনানিবাস এলাকায় ৮ কোটি ২৩ লাখ টাকা ব্যয়ে গড়ে তোলা হয়েছে সবুজ উদ্যান। ছবি : কালের কণ্ঠ

প্রধানমন্ত্রীর চলমান দুর্নীতিবিরোধী অভিযানকে স্বাগত জানিয়ে গৃহায়ন ও গণপূর্ত বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, ‘আমাদের মধ্যে অনেক অসাধু মানুষ রয়েছে। তাদের ব্যাপারে সতর্ক থাকতে হবে। আর যেন দুর্নীতিবাজরা কোথাও স্থান করে নিতে না পারে সেদিকে বিশেষ নজর রাখতে হবে।’

মঙ্গলবার নগরের বায়েজিদ এলাকায় ‘সবুজ উদ্যান’ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন, সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ ও মঈনউদ্দিন খান বাদল, চট্টগ্রাম ক্যান্টেনমেন্টের জিওসি মেজর জেনারেল এস এম মতিউর রহমান। এতে সভাপতিত্ব করেন গণপূর্ত বিভাগের প্রধান প্রকৌশলী মো. শাহাদাত হোসেন।

সাবেক গণপূর্তমন্ত্রী মোশাররফ বলেন, ‘মন্ত্রী থাকাকালীন গণপূর্ত বা গৃহায়নের কোনো ঠিকাদারের সঙ্গে আমার দেখা হত না। তারা চেষ্টা করলেও আমি দেখা করতাম না। সরকারি নিয়ম অনুযায়ী ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান কাজ পেত।’

চট্টগ্রামে সুয়ারেজ প্রকল্প নেই উল্লেখ করে মোশাররফ বলেন, ‘নগরবাসীর পয়ঃবর্জ্য কর্ণফুলীতে যাচ্ছে। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে উন্নত পয়ঃবর্জ্য নিষ্কাশনের ব্যবস্থা আছে। সেগুলোকে আমাদের দেশেও কাজে লাগাতে হবে। কেন করতে পারছি না সেটি খেয়াল রাখতে হবে।’

মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, ‘চট্টগ্রাম নগর পরিকল্পিতভাবে গড়ে ওঠেনি। চট্টগ্রাম বাণিজ্যিক নগর কিন্তু পরিকল্পিতভাবে শহর গড়ে না ওঠায় চাপ বাড়ছে। চট্টগ্রামে দুটি অর্থনৈতিক অঞ্চল হচ্ছে, বন্দরের সক্ষমতা বাড়ছে।’

‘চট্টগ্রাম ব্যবসায়িক নগর হিসেবে গড়ে উঠছে। ফলে নগরের উপর চাপ আরো বাড়বে। এখনই যদি পরিকল্পিত কোনো সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা না যায় তাহলে ভবিষ্যতে আরো খারাপ প্রভাব পড়বে নগরবাসীর উপর।’-যোগ করেন মেয়র।

উল্লেখ্য, নগরের বায়েজিদে সেনানিবাস এলাকায় ৮ কোটি ২৩ লাখ টাকা ব্যয়ে ‘বায়েজিদ সবুজ উদ্যান’ নির্মাণ করেছে গণপূর্ত বিভাগ। দুই একরের বিশাল এই উদ্যানে ৪১ প্রজাতির বৃক্ষরোপণ করা হয়েছে।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা