kalerkantho

শনিবার  । ১৯ অক্টোবর ২০১৯। ৩ কাতির্ক ১৪২৬। ১৯ সফর ১৪৪১                     

সেরা পরিচালক

পুরস্কার যেন ডালভাত

৩০ মে, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পুরস্কার যেন ডালভাত

সেরা পরিচালকের পুরস্কার জিতে উচ্ছ্বসিত দার্দেন ভ্রাতৃদ্বয়

জঁ পিয়ের দার্দেন ও লুক দার্দেন দুই ভাই। বেলজিয়ামের এই দার্দেন ভ্রাতৃদ্বয় একসঙ্গে পরিচালনা করেন। শুধু পরিচালনাই নয়, চিত্রনাট্য লেখা ও প্রযোজনার দায়িত্বেও থাকেন দুজন। তাঁরা প্রথম তথ্যচিত্র নির্মাণ করেন ১৯৭৮ সালে। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে নাৎসি বাহিনীর বিরুদ্ধে বেলজিয়ামের প্রতিরোধের প্রেক্ষাপট নিয়ে। প্রথম পূর্ণদৈর্ঘ্য ১৯৮৬ সালে। সেটার বিষয়ও নাৎসি। ওই বাহিনীর নির্মমতার শিকার হওয়া একটি ইহুদি পরিবারের গল্প নিয়ে সিনেমা। আন্তর্জাতিক মহলে পরিচিতি পান তৃতীয় সিনেমা ‘দ্য প্রমিজ’ দিয়ে। প্রথম আন্তর্জাতিক পুরস্কার অবশ্য জেতেন ‘রোজেটা’ দিয়ে। ১৯৯৯ সালে নির্মিত সিনেমাটির জন্য এই কানেই স্বর্ণপাম জেতেন। কানের সঙ্গে সম্পর্কের সেই শুরু। এরপর যেন কানের পুরস্কার ডালভাত হয়ে যায় তাঁদের জন্য। ২০০২ সালে তাঁদের ‘স্য সান’-এর জন্য উৎসবের সেরা অভিনেতা হন অলিভিয়ার গুরমেট। এখানেই শেষ নয়, তিন বছর বাদেই ‘দ্য চাইল্ড’-এর জন্য পান দ্বিতীয় স্বর্ণপাম। এরপর দুজন কানে সেরা চিত্রনাট্যকার হন, পান গ্রাঁ প্রিঁ। এবার তাঁরা সেরা পরিচালক হয়েছেন

‘ইয়ং আহমেদ’ দিয়ে। এক বেলজিয়ান তরুণের গল্প নিয়ে ছবি। যে ধর্মান্ধতায় বশীভূত হয়ে তার শিক্ষককে খুন করার পরিকল্পনা করে! পুরস্কারের প্রতিক্রিয়ায় পরিচালকদ্বয় বলেন, ‘আমরা এখন কঠিন একটা সময় পার করছি। সেই সময়ের গল্পই উঠে এসেছে ছবিতে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা