kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৬ আগস্ট ২০২২ । ১ ভাদ্র ১৪২৯ । ১৭ মহররম ১৪৪৪

‘পরিকল্পনা করেই আমরা দুই ভাষায় গানটি করেছি’

কণ্ঠশিল্পী ও সংগীত পরিচালক হৃদয় খানের নতুন গান ‘মন দেওয়ালে’ প্রকাশ পেয়েছে ২৪ জুন রাতে, শ্রীলঙ্কান সংগীত পরিচালক রাজ থিলাইয়ামপালামের ইউটিউব চ্যানেলে। গানটির সংগীতও করেছেন রাজ। হৃদয় খানের সঙ্গে কথা বলেছেন সুদীপ কুমার দীপ

২৬ জুন, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



‘পরিকল্পনা করেই আমরা দুই ভাষায় গানটি করেছি’

হৃদয় খান ছবি : সংগৃহীত

মন দেওয়ালে’ প্রকাশের পর কেমন সাড়া পাচ্ছেন?

গানটি ২৪ জুন প্রকাশ পেয়েছে। মাত্র এক দিনে শ্রোতাদের ভালো লাগা, মন্দ লাগাটা বুঝে ওঠা কঠিন। তবে এরই মধ্যে ইউটিউবে যাঁরা গানটি দেখেছেন ও শুনেছেন, তাঁদের অনেকেই আমাকে ফোন দিয়েছেন, খুদে বার্তা দিয়ে জানিয়েছেন। সংগীত পরিচালক রাজের ইউটিউব চ্যানেল থেকেই গানটি প্রকাশ পেয়েছে।

বিজ্ঞাপন

গানটি শুনে অনেকেই ইউটিউবে মন্তব্য করেছেন, বেশির ভাগ শ্রোতাই পছন্দ করেছেন। আরো এক-দুই সপ্তাহ গেলে সঠিক চিত্র বুঝতে পারব।

 

রাজের সঙ্গে আপনার পরিচয় হলো কিভাবে?

প্রায় আট বছর আগে রাজের সঙ্গে আমার পরিচয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। একে অন্যের সংগীতায়োজন নিয়ে আলোচনা করি। তিনি বাংলাদেশে আরো কয়েকজন শিল্পীর গান করেছেন। তাঁর সঙ্গে আমার বোঝাপড়াটা দারুণ। ছয় বছর আগে রাজ আমার একটি গানের সংগীতায়োজন করেছিলেন। ‘ফিরে তো পাব না’ গানটি তখন দারুণ জনপ্রিয়তা পেয়েছিল। ইউটিউবের বিভিন্ন চ্যানেল কপি করে গানটি বেনামে ছেড়েছেন। সেখানেও মিলিয়ন মিলিয়ন ভিউ। গানটি গুঞ্জন রহমান ভাইয়ের লেখা, নতুন গান ‘মন দেওয়ালে’ও গুঞ্জন ভাইয়ের লেখা। বলতে পারেন আমরা একটা টিম।

 

রাজের চ্যানেল থেকে গানটা প্রকাশ করার কারণ কী?

রাজ এক দিন বললেন, গানটি তাঁর ইউটিউব চ্যানেল থেকে ছাড়তে চান। আমিও রাজি হয়ে গেলাম। কারণ ‘ফিরে তো পাব না’ গানটি মাত্র তিন বছর আগে রাজ তাঁর চ্যানেলটি থেকে নতুন করে ছেড়েছিলেন, এখন সেটির দেড় কোটি ভিউ! ভাবলাম তাহলে শ্রীলঙ্কায়ও তো আমার শ্রোতা আছেন, তাঁদের জন্যই না হয় গানটি ওখান থেকে প্রকাশ পাক।

একই সুর ও সংগীতে তো ‘মারুঠে’ নামে শ্রীলঙ্কান ভাষায় গান গেয়েছেন রিদমা উইরাবর্ধনে। সেটিও ২৩ জুন প্রকাশ পেয়েছে...

এটা আমরা পরিকল্পনা করেই করেছি। শ্রীলঙ্কান ভাষার গানটি লিখেছেন আনসাফ আমীর। শ্রোতারা দারুণ পছন্দ করেছেন গানটি। আমরা চেয়েছি একই সুর-সংগীতে বাংলা ও সিংহলি ভাষায় গান হোক। খুব শিগগিরই আমার সুর-সংগীতেও এই দুই ভাষায় গান হবে। আসলে শ্রীলঙ্কান সুর-সংগীতের সঙ্গে আমাদের সুর-সংগীতের তেমন পার্থক্য নেই। তাই দুই দেশের শ্রোতারা যদি একই সুর-সংগীতে দুই ভাষায় গান পান তাহলে মন্দ কী?

 

আপনার সংগীতে ও কণ্ঠে আর কোনো নতুন গান আসবে এর মধ্যে?

১ জুলাই নতুন আরেকটি গান প্রকাশ করব আমার ইউটিউব চ্যানেল থেকে। কিছু চমক আছে। একটা সপ্তাহ সবাইকে অপেক্ষা করার অনুরোধ করছি।



সাতদিনের সেরা