kalerkantho

শনিবার ।  ২১ মে ২০২২ । ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩  

পরিচালকদের সামনে বাণীর ‘মানবী’ দৃষ্টান্ত

রংবেরং ডেস্ক   

২০ জানুয়ারি, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পরিচালকদের সামনে  বাণীর ‘মানবী’ দৃষ্টান্ত

বাণী কাপুর

‘শুদ্ধ দেশি রোমান্স’, ‘ওয়ার’ থেকে ‘বেল বটম’—তিন ছবিতে বাণী কাপুরের চরিত্র ছিল অনেকটা নামসর্বস্ব। গেল বছর এক সাক্ষাৎকারে অভিনেত্রী বলেছিলেন, তাঁর মূল চ্যালেঞ্জ নানা ধরনের বৈচিত্র্যময় চরিত্রে অভিনয় করা। বাণীর সেই যাত্রা শুরু হলো ‘চণ্ডীগড় করে আশিকি’ দিয়ে। ছবিতে ট্রান্সজেন্ডার নারী মানবী করের চরিত্রে অভিনয় করে ব্যাপক প্রশংসিত হয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

প্রেক্ষাগৃহে ছবিটি মোটামুটি ফল করলেও নেটফ্লিক্সে মুক্তির পর বিশ্ববাপী সাড়া ফেলেছে। মুক্তির প্রথম সপ্তাহে নেটফ্লিক্সের গ্লোবাল ট্রেন্ডে সেরা পাঁচে ছিল ছবিটি। বাণীর আশা, ‘মানবী’ চরিত্র তাঁর ক্যারিয়ার বদলে দেবে। এই চরিত্রে পারফরম্যান্স দেখে পরিচালকরা তাঁকে এমন নানা বৈচিত্র্যময় চরিত্রে সুযোগ দেবেন। “আমি যত বেশি সম্ভব ভিন্নধর্মী চরিত্রে অভিনয় করতে চাই, যা অভিনেত্রী হিসেবে আমার দক্ষতা দেখানোর সুযোগ করে দেবে। ‘চণ্ডীগড় করে আশিকি’তে যেমনটা দেখেছে দর্শক। সামনে ‘শমশেরা’য়ও দেখবে। আশা করি এসব চরিত্রে পারফরম্যান্স দেখার পর পরিচালকরা আমাকে চ্যালেঞ্জিং চরিত্র দিতে সাহস পাবেন। আমি ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই ভালো পরিচালকদের আস্থা অর্জনের জন্য কাজ করছি,’ বলেন বাণী।

এক জীবনে পর্দায় নানা রকম চরিত্রে অভিনয় করতে পারবেন—অভিনেত্রী হওয়ার এই সুবিধা পুরোপুরি নিতে চান বাণী। তিনি বলেন, ‘বৈচিত্র্যময় চরিত্র তো বটেই, আমি নানা ঘরানার ছবিতেও কাজ করতে চাই, যা দর্শকদের আনন্দ দেবে। ’ ২০১৩ সালে অভিষেক হলেও এ পর্যন্ত মাত্র ছয়টি ছবি মুক্তি পেয়েছে বাণীর।

 

সূত্র : ফিল্মফেয়ার



সাতদিনের সেরা