kalerkantho

রবিবার । ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ৫ ডিসেম্বর ২০২১। ২৯ রবিউস সানি ১৪৪৩

দুর্ঘটনা যুগে যুগে

২৬ অক্টোবর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দুর্ঘটনা যুগে যুগে

‘টোয়াইলাইট জোন—দ্য মুভি’র বিধ্বস্ত হেলিকপ্টার

গেল পাঁচ দশকের মধ্যে অন্যতম বড় দুর্ঘটনা ঘটে ১৯৮২ সালে, ‘টোয়াইলাইট জোন—দ্য মুভি’র সেটে। হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়ে মারা যান তিন অভিনেতা। যার মধ্যে ছিলেন অভিনেতা ভিক ম্যারো, অন্য দুজন শিশুশিল্পী। হলিউডে তোলপাড় ফেলে দেয় এই ঘটনা। এই অ্যানথোলজি ছবির অন্যতম প্রযোজক ও পরিচালক স্টিভেন স্পিলবার্গ। তখন তিনি ঘটনার জন্য দুঃখপ্রকাশ করে বলেছিলেন, সব রকম নিরাপত্তা প্রস্তুতি নেওয়ার পরও এই ঘটনা ঘটেছে। এরপর নড়েচড়ে বসে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী। দীর্ঘদিন তদন্তের পর হেলিকপ্টার ও শিশুশিল্পীদের নিয়ে শুটিংয়ে নতুন নীতিমালা হয়।

ঠিক ‘রাস্ট’-এর মতোই ঘটনা ঘটে ১৯৯৩ সালে। মার্শাল আর্ট তারকা ব্রস লির ছেলে ব্যান্ডন লি মারা যান প্রপ গানের গুলিতে। ‘দ্য ক্রো’ ছবির শুটিংয়ে ওই দুর্ঘটনা ঘটেছিল। ছবিতে গুলি খাওয়ার দৃশ্যেই অভিনয় করছিলেন লি। কিন্তু কাট বলার পরও যখন তিনি উঠছিলেন না তখন গিয়ে দেখা যায় সত্যি সত্যি গুলি লেগেছে। দুর্ঘটনার পর ছয় ঘণ্টা অস্ত্রোপচার হয়, কিন্তু ২৮ বছর বয়সী লিকে বাঁচানো যায়নি। ‘রাস্ট’ এর ঘটনার পর নিহত সিনেমাটোগ্রাফারের প্রতি সহমর্মিতা জানিয়ে টুইট করেছেন ব্যান্ডন লির বোন শ্যানন লি।

দুর্ঘটনা ঘটে ক্রিস্টোফার নোলানের আলোচিত ‘ব্যাটম্যান’ সিক্যুয়াল ‘দ্য ডার্ক নাইট’-এর শুটিংয়েও। ছবির স্পেশাল ইফেক্ট কর্মী কনওয়ে উইকলিফি একটি স্টান্ট পারফর্ম করার সময় মারা যান। একই রকম ঘটনা ঘটে ২০১২ সালেও। জনি ডেপ, অ্যামি হ্যামার অভিনীত ‘দ্য লোন রেঞ্জার’-এর শুটিংয়ের সময় মারা যান চালক মাইকেল ব্রিজার। ২০১৬ সালে এই দুর্ঘটনার জন্য ব্রিজারের পরিবার ৬১ হাজার ডলার ক্ষতিপূরণ পায়, যা চলচ্চিত্র সেটে দুর্ঘটনার জন্য পাওয়া সর্বোচ্চ ক্ষতিপূরণ।



সাতদিনের সেরা