kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৬ কার্তিক ১৪২৭। ২২ অক্টোবর ২০২০। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

স্বজনপ্রীতি নেই

রংবেরং ডেস্ক   

২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



স্বজনপ্রীতি নেই

গেল কয়েক মাস ধরেই স্বজনপ্রীতি বিতর্কে উত্তাল বলিউড। প্রথমবারের মতো এই বিতর্ক নিয়ে মুখ খুললেন রাইমা সেন। সুচিত্রা সেনের নাতনি, মুনমুন সেনের মেয়ে রাইমা ‘হিন্দুস্তান টাইমস’কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে স্বজনপ্রীতির কথা এককথায় খারিজ করে দিলেন। বললেন, ‘স্বজনপ্রীতি থাকলে তো আমি আজ শীর্ষ অভিনেত্রী হতাম!’ অভিষেকের ক্ষেত্রে পরিবারের কারণে বিশেষ সুবিধা পাওয়ার কথা অবশ্য অস্বীকার করেননি, “প্রথম সুযোগ পাওয়ার ক্ষেত্রে পরিবার অবশ্যই ভূমিকা রাখে। মুনমুন সেনের মেয়ে বলেই ১৯৯৯ সালে ‘গডমাদার’-এ সুযোগ পেয়েছিলাম। কিন্তু ওই একবারই। প্রথম ছবির পর দ্বিতীয় ছবি পাওয়ার আগে ১০০টিরও বেশি ছবি তৈরি হয়েছে, যার কোনোটিতেই অডিশনের জন্য ডাক পাইনি।” বলিউডে শুধু যোগ্যতমরাই টিকে থাকে এমনটাই বিশ্বাস করেন রাইমা। মনে করেন, ভালো করতে না পারলে বড় তারকার পুত্র-কন্যা হলেও কোনো লাভ নেই। “ক্যারিয়ারের শুরুর দিকেই কলকাতায় গিয়ে বাংলা ছবি করতে শুরু করি। ‘চোখের বালি’, ‘দ্য জাপানিজ ওয়াইফ’-এর কল্যাণে বলিউডের অনেকেই আমাকে চেনেন। কিন্তু এটাই যথেষ্ট নয়, আপনাকে টানা ভালো কাজ করে যেতে হবে। যদি প্রতিভা থাকে একটা রাস্তা ঠিক খুঁজে পাবেন”, বলেন রাইমা।

 

সূত্র : হিন্দুস্তান টাইমস

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা