kalerkantho

শনিবার । ২৫ জুন ২০২২ । ১১ আষাঢ় ১৪২৯ । ২৪ জিলকদ ১৪৪৩

দরিদ্রদের টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে

দেবীদ্বার

দেবীদ্বার (কুমিল্লা) প্রতিনিধি   

২৮ মে, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কুমিল্লার দেবীদ্বারে টিসিবি, বিধবা ভাতা ও বয়স্ক ভাতার কার্ড করে দেওয়ার কথা বলে প্রায় দুই শ দরিদ্র নারী-পুরুষের কাছ থেকে দুই লক্ষাধিক টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে এক ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) সদস্যের বিরুদ্ধে।

গত ১ এপ্রিল দায়িত্ব গ্রহণের মাত্র দুই মাসের মাথায় এ অভিযোগ উঠেছে দেবীদ্বারের ৯ নম্বর গুনাইঘর ইউপির ৩ নম্বর ওয়ার্ডের নবনির্বাচিত সদস্য মো. কাউছারের বিরুদ্ধে। ওই ঘটনায় প্রতারিতদের পক্ষ থেকে গজারিয়া গ্রামের ১৭ জন ভুক্তভোগী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাসহ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তরপ্রধান বরাবরে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ইউপি সদস্য কাউছার এক মাস আগে এলাকার দরিদ্র লোকজনের কাছ থেকে টিসিবির কার্ড, বয়স্ক ভাতা, বিধবা ভাতার কার্ড করে দেওয়ার কথা বলে জনপ্রতি এক হাজার করে প্রায় দুই লাখ টাকা উেকাচ নেন।

বিজ্ঞাপন

পরে নানা টালবাহানায় সময়ক্ষেপণ করতে থাকেন।

গজারিয়া গ্রামের মো. জয়নাল আবেদীন বলেন, ‘টিসিবির কার্ড করে দিতে কাউছার মেম্বার তিন হাজার টাকা নিয়েছে। আমি তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার হুমকি দিলে সে টাকা ফেরত দিয়ে যায়। ’

অভিযুক্ত মো. কাউছার মেম্বার বলেন, ‘এসব আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র। পরাজিত মেম্বার প্রার্থী দরিদ্রদের উসকে দিয়ে মিথ্যা অভিযোগ তুলেছেন। ’

তিনি আরো বলেন, ‘একটি প্রবাসী সংগঠনের উদ্যোগে ২০ কেজি চাল, চার লিটার সয়াবিন, পাঁচ কেজি পেঁয়াজ এবং দুই কেজি চিনি দেওয়ার কথা বলে এক হাজার টাকা করে ১০০ জনের কাছ থেকে নিয়েছি। সংগঠনের পক্ষ থেকে ৫০ হাজার টাকা ভর্তুকি দিয়ে মানুষের পাশে দাঁড়াতে চেয়েছি। হঠাৎ খাদ্যসামগ্রীর দাম বেড়ে যাওয়ায় কর্মসূচি বন্ধ রাখি। ’

ইউপি চেয়ারম্যান মো. মোকবল হোসেন মুকুল বলেন, ‘টাকা আদায়ের সংবাদ পেয়ে কাউছারকে ইউনিয়ন পরিষদে ডেকে আনি। কাউছার মেম্বার তাঁর অপরাধ স্বীকার করে ক্ষমা প্রার্থনা করেছেন এবং প্রত্যেকের টাকা ফেরত দেওয়ারও অঙ্গীকার করেছেন। ’

এ ব্যাপারে দেবীদ্বার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আশিক-উন-নবী তালুকদার বলেন, ‘দু-এক দিনের মধ্যে বিষয়টি তদন্তে একটি কমিটি গঠন করে দেব। রিপোর্ট পাওয়ার পর আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ’

 



সাতদিনের সেরা