kalerkantho

রবিবার । ৩ জুলাই ২০২২ । ১৯ আষাঢ় ১৪২৯ । ৩ জিলহজ ১৪৪৩

হাসপাতালে মৃত ঘোষণার পর নড়ে উঠল শিশু, বিক্ষোভ

বানারীপাড়া (বরিশাল) প্রতিনিধি   

২১ মে, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বরিশালের বানারীপাড়ায় পুকুরের পানিতে পড়ে যাওয়া শিশুকে হাসপাতালের চিকিৎসক মৃত ঘোষণার পর দাফনের প্রস্তুতিকালে নড়ে ওঠায় পুনরায় হাসপাতালে এনে বিক্ষোভ করেছেন স্বজনরা।

উপজেলার সলিয়াবাকপুর ইউনিয়নের বেতাল গ্রামের রাজমিস্ত্রি মো. সুমনের দুই বছরের শিশু সাইমুন গতকাল শুক্রবার সকালে বাড়ির উঠানের পাশে পুকুর পাড়ে খেলা করতে গিয়ে পানিতে পড়ে যায়। ওই সময় শিশুটির মা উঠানে ধান সিদ্ধ করছিলেন। তাৎক্ষণিক শিশুটিকে অচেতন অবস্থায় পুকুর থেকে তুলে বানারীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে জরুরি বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসক সুব্রতদেব পাল সকাল ১০টা পাঁচ মিনিটে তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

বিজ্ঞাপন

পরে বাড়িতে নিয়ে দাফন করার জন্য প্রস্তুতি নিলে হঠাৎ শিশুটি নড়েচড়ে ওঠে এবং তার মুখ থেকে পানি গড়িয়ে পড়ে। সকাল সাড়ে ১১টার দিকে তাঁরা পুনরায় শিশুটিকে বানারীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। এ সময় তাঁরা চিকিৎসকের বিরুদ্ধে চিকিৎসায় অবহেলার অভিযোগ তুলে বিক্ষোভ করেন। বিক্ষুব্ধ জনতা চিকিৎসকের বিচার দাবি করেন। তবে দ্বিতীয় দফায় চেষ্টার পরেও শিশুটিকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি।

এ বিষয়ে বানারীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক সুব্রতদেব পাল দাবি করেন, হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই শিশুটির মৃত্যু হয়েছে। তার পরেও অক্সিজেন দেওয়া, ইসিজি করাসহ সব ধরনের চেষ্টা করা হয়েছে। দ্বিতীয়বার নিয়ে আসার পরেও পুনরায় অক্সিজেন দেওয়া, ইসিজি করাসহ সর্বাত্মক চেষ্টা করা হয়েছে।



সাতদিনের সেরা