kalerkantho

শুক্রবার । ১৯ আগস্ট ২০২২ । ৪ ভাদ্র ১৪২৯ । ২০ মহররম ১৪৪৪

নির্বাচনী সহিংসতা

রাজৈরে প্রতিপক্ষের হামলায় চেয়ারম্যানসহ চারজন আহত

শান্তিপূর্ণভাবে নির্বাচন সম্পন্ন করার লক্ষ্যে এ ধরনের কর্মকাণ্ড বন্ধ করা প্রয়োজন -সাহাবুদ্দিন সাহা, আহ্বায়ক, উপজেলা আ. লীগ

রাজৈর (মাদারীপুর) প্রতিনিধি   

১৮ মে, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলার খালিয়া ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান হামিদুল শাহআলমসহ চারজন আহত হয়েছেন। গত সোমবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার টেকেরহাট-কদমবাড়ী সড়কের খালিয়া ফায়ার সার্ভিসের সামনে এ ঘটনা ঘটে। আহত চেয়ারম্যানকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, রাজৈরের চারটি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১৫ জুন।

বিজ্ঞাপন

গতকাল ছিল মনোনয়নপত্র জমাদানের শেষ দিন। এ নিয়ে এলাকায় আগে থেকেই উত্তেজনা বিরাজ করছিল। খালিয়া ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান ও এবারের নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হামিদুল শাহআলম তাঁর সমর্থকদের নিয়ে সেন্দিয়া এলাকা থেকে নির্বাচনী প্রচার শেষে খালিয়া ফায়ার সার্ভিসের সামনে এলে অতর্কিতভাবে প্রতিপক্ষের লোকজন তাঁদের ওপর হামলা চালায়। হামলায় চেয়ারম্যান হামিদুল শাহআলম, তাঁর ভাই কালুসহ চারজন আহত হন। এতে এলাকায় চরম উত্তেজনা সৃষ্টি হলে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনার রেশ ধরে পরদিন সকালে টেকেরহাট বন্দরে উভয় পক্ষের সমর্থকরা জড়ো হয়ে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে মহড়া দেয়।

রাজৈর উপজেলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক সাহাবুদ্দিন সাহা ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে বলেন, ‘শান্তিপূর্ণভাবে নির্বাচন সম্পন্ন করার লক্ষ্যে এ ধরনের কর্মকাণ্ড বন্ধ করা প্রয়োজন। ’ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহাবুদ্দিন আহম্মেদ মোল্লা বলেন, ‘এ ধরনের ঘটনা মেটেও কাম্য নয়। ’

এ ব্যাপারে রাজৈর থানার ওসি আলমগীর হোসেন বলেন, ‘খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে উত্তেজনাকর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছে। তবে এ ঘটনায় এখনো কেউ থানায় অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ’



সাতদিনের সেরা