kalerkantho

রবিবার। ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮। ১৬ মে ২০২১। ০৩ শাওয়াল ১৪৪২

পরিত্যক্ত ককটেল বিস্ফোরণে নিহত স্কুলছাত্র

মা-বোন আহত

কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি   

১৬ এপ্রিল, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



যশোরের কেশবপুরে পরিত্যক্ত একটি টং ঘরে পাওয়া ককটেল বিস্ফোরণে আব্দুর রহমান (৮) নামের এক স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। গুরুতর আহত হয়েছে তার মা নিলুফা বেগম (৩০) ও ছোট বোন মারুফা খাতুন (৪)। গতকাল বৃহসপতিবার দুপুরে উপজেলার বিদ্যানন্দকাটি ইউনিয়নের বাউশলা গ্রামে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

আহত নিলুফা ও মারুফাকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদের খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

খবর পেয়ে পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন এবং নিহত শিশুর মরদেহ উদ্ধার করেন। নিহত আব্দুর রহমান স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের দ্বিতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থী।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, বাউশলা গ্রামের ভ্যানচালক মিজানুর রহমানের ছেলে আব্দুর রহমান তার ছোট বোন মারুফাকে সঙ্গে নিয়ে বাড়ির পাশের বিলে খেলা করছিল। ওই সময় বিলের মধ্যে পরিত্যক্ত টং ঘরের ভেতর পলিথিনে মোড়ানো একটি কৌটা পেয়ে তারা তা বাড়িতে নিয়ে আসছিল। বাড়ির কাছে ফিরে মসজিদের পাশে মা নিলুফা বেগমকে ওই কৌটা দেখানোর সময় তা বিস্ফোরণ ঘটে। এতে ঘটনাস্থলেই আব্দুর রহমান মারা যায়। গুরুতর আহত হয় তার মা ও ছোট বোন।