kalerkantho

বুধবার। ৬ মাঘ ১৪২৭। ২০ জানুয়ারি ২০২১। ৬ জমাদিউস সানি ১৪৪২

তালাক দেওয়ায় এসিডে ঝলসাল সাবেক স্বামী

বড়াইগ্রাম (নাটোর) প্রতিনিধি   

২৫ নভেম্বর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নাটোরের বড়াইগ্রামে স্বামীর অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে তালাক দেওয়ায় নার্গিস আক্তার নূপুর (২৭) নামের এক নারীকে এসিডে ঝলসে দেওয়া হয়েছে। গত সোমবার রাতে উপজেলার জোয়াড়ী ইউনিয়নের কামারদহ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় গুরুতর আহত নূপুরকে প্রথমে নাটোর সদর হাসপাতালে নেওয়ার পর অবস্থার অবনতি হলে ঢাকায় শেখ হাসিনা বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। আহত নূপুর কামারদহ গ্রামের আনোয়ার হোসেন তাজেমের মেয়ে এবং আহম্মেদপুর গ্রামের রাহাত আলীর ছেলে আবু তালেবের সাবেক স্ত্রী।

নূপুরের বাবা আনোয়ার হোসেন তাজেম বলেন, ‘নূপুরকে বিয়ে করার পর আবু তালেব আমার বাড়িতেই থাকত। বিয়ের পর পরই তাদের মধ্যে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে মতানৈক্য দেখা দেয়। ফলে প্রায়ই দ্বন্দ্ব-কলহ লেগে থাকত। এ কারণে সাত দিন আগে আমার মেয়ে তাকে তালাক দেয়। সোমবার সন্ধ্যায় নূপুর বাড়ির উঠানে হাঁটাহাঁটি করছিল। এ সময় আবু তালেব তার মুখে এসিড ছুড়ে পালিয়ে যায়। এসিডে নূপুরের মুখের একটি অংশসহ শরীরের বিভিন্ন অংশ ঝলসে গেছে।’ বড়াইগ্রাম থানার ওসি আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, ‘খবর পেয়ে রাতেই অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত আবু তালেবকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা