kalerkantho

মঙ্গলবার । ৭ আশ্বিন ১৪২৭ । ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০। ৪ সফর ১৪৪২

বোয়ালমারী

যুবলীগ নেতাসহ ২০ জনের বাড়ি ভাঙচুর

বোয়ালমারী-আলফাডাঙ্গা (ফরিদপুর) প্রতিনিধি   

৬ আগস্ট, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



যুবলীগ নেতাসহ ২০ জনের বাড়ি ভাঙচুর

ফরিদপুরের বোয়ালমারী উপজেলার হরিহরনগরে যুবলীগ নেতা বাকিয়ার মোল্যার এক সমর্থকের বাড়িতে গতকাল ভাঙচুর চালানো হয়। ছবি : কালের কণ্ঠ

ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে তিন দফা হামলা চালিয়ে যুবলীগ নেতা বাকিয়ার মোল্যাসহ ২০ জনের বাড়িতে ভাঙচুর ও লুটপাট করা হয়েছে বলে অভিযোগ। আধিপত্য বিস্তারের জেরে গতকাল বুধবার হরিহরনগর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। এ সময় কয়েকটি বাড়ির বিদ্যুৎ সংযোগও বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ।

গুনবহা ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক ইউপি সদস্য সাহেব আলী মোল্যার নেতৃত্বে ইউপি সদস্য মঞ্জুর হোসেন, আক্কাস মোল্যাসহ আরো কয়েকজন এই কাজ করেছেন বলে অভিযোগ।

প্রসঙ্গত, বাকিয়ার গুনবহা ইউনিয়ন যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক। অন্যদিকে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় অভিযুক্ত আক্কাসকে আটক করা হয়। এ ছাড়া ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন আছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, হরিহরনগরে মঙ্গলবার বিকেলে আওয়ামী লীগ নেতা সাহেব আলীর পক্ষের লোকজন বাকিয়ার পক্ষের উজ্জ্বলকে মারধর করে। এই নিয়ে দুই পক্ষে উত্তেজনা চলছিল। এর জেরে সাহেব আলীর পক্ষ গতকাল ভোর ৫টা থেকে সকাল ৯টা পর্যন্ত তিন দফা হামলা চালিয়ে যুবলীগ নেতা বাকিয়ার বাড়িসহ ২০টি বাড়িতে ব্যাপক ভাঙচুর করে। এ সময় টাকা, স্বর্ণালংকার, মূল্যবান আসবাব, গবাদি পশু ও পোষা পাখি লুটে নেয়। এই সময় কয়েকটি বাড়ির বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হয় বলেও অভিযোগ।

কান্নাজড়িত কণ্ঠে জাকির মোল্যার মা সখিরন নেছা অভিযোগ করেন, ছেলের কিডনি অপারেশনের জন্য গতকাল সকালে ঢাকায় যাওয়ার কথা ছিল। এ জন্য ঘরে দুটি গরু বিক্রির দেড় লাখ টাকা রাখা ছিল। লুটপাটকারীরা সব টাকা নিয়ে গেছে।

অভিযোগের বিষয়ে আওয়ামী লীগ নেতা সাহেব আলী বলেন, ‘প্রতিপক্ষের লোকজন হামলা করতে এলে এই ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে।’

ঘটনাস্থল পরিদর্শনকারী বোয়ালমারী থানার ওসি মো. আমিনুর রহমান জানান, তদন্তপূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা