kalerkantho

শনিবার । ৩১ শ্রাবণ ১৪২৭। ১৫ আগস্ট ২০২০ । ২৪ জিলহজ ১৪৪১

তুলে নেওয়ার ২০ ঘণ্টা পর দুই শ্রমিক নেতা গ্রেপ্তার

খুলনার রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকল

খুলনা অফিস   

৮ জুলাই, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



তুলে নেওয়ার ২০ ঘণ্টা পর দুই শ্রমিক নেতা গ্রেপ্তার

খুলনায় বন্ধ হওয়া রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলের দুই শ্রমিক নেতাকে সাদা পোশাকে তুলে নেওয়ার অভিযোগের ২০ ঘণ্টা পর গ্রেপ্তার দেখিয়েছে দৌলতপুর থানার পুলিশ। গত সোমবার রাতে নগরীর দৌলতপুর থানার পুরনো একটি মামলায় সন্দেহভাজন হিসেবে তাঁদের গ্রেপ্তার দেখানো হয়। ২০১৯ সালের ৪ এপ্রিল পাটকল শ্রমিকদের বিক্ষোভ থেকে নগরীর নতুন রাস্তা মোড়ের পুলিশ বক্সে হামলা ও ভাঙচুরের অভিযোগে মামলাটি করা হয়েছিল।

এদিকে পুলিশ গ্রেপ্তারকৃতদের সাত দিনের রিমান্ড আবেদন জানিয়ে গতকাল মঙ্গলবার সকালে তাঁদের আদালতে পাঠায়। কিন্তু আদালত শুনানি শেষে রিমান্ড নামঞ্জুর করে দুপুরে তাঁদের জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

শ্রমিক নেতাদের পরিবারের অভিযোগ, গত রবিবার রাতে ইস্টার্ন জুট মিলের শ্রমিক ও পাটশিল্প রক্ষা যুব জোটের আহ্বায়ক অলিয়ার রহমান এবং প্লাটিনাম জুবিলি জুটমিলের শ্রমিক ও পাটশিল্প রক্ষা যুব জোটের উপদেষ্টা নূর ইসলামকে নিজ নিজ বাড়ি থেকে তুলে নেয় সাদা পোশাকধারীরা। তবে পুলিশ বিষয়টি অস্বীকার করে আসছিল।

দৌলতপুর থানার ওসি সৈয়দ মোশাররফ হোসেন জানান, ২০১৯ সালে নগরীর নতুন রাস্তা মোড়ের পুলিশ বক্সে হামলা ও ভাঙচুর করা হয়। ওই ঘটনায় পুলিশের করা মামলায় দুই শ্রমিককে সন্দেহভাজন হিসেবে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। মামলাটির তদন্ত কর্মকর্তা উপপরিদর্শক (এসআই) শাহীনুর রহমান সাত দিনের রিমান্ড আবেদন জানিয়ে গতকাল সকালে তাঁদের আদালতে পাঠায়। আদালত শুনানি শেষে তাঁদের রিমান্ড নামঞ্জুর করে দুপুরে জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

এ বিষয়ে শ্রমিক নেতা অলিয়ারের ছেলে নাইম শেখ বলেন, ‘অবশেষে বাবাকে দেখতে পেলাম। বাবাকে তুলে নেওয়ার পর থেকে পুলিশ অস্বীকার করে যাচ্ছিল যে তারা কিছু জানে না। আমরা বুঝতেই পারছিলাম না এটা কী রাজনৈতিক, না প্রশাসনিক কারণে হয়েছে। এখন তারা কিভাবে জানল। এই দীর্ঘ সময় আমাদের কিভাবে কেটেছে কেউ তা জানে না।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা