kalerkantho

রবিবার । ২১ আষাঢ় ১৪২৭। ৫ জুলাই ২০২০। ১৩ জিলকদ  ১৪৪১

বেড়ায় দুই পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১ আহত ১০

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, পাবনা   

১৭ এপ্রিল, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পাবনার বেড়া উপজেলার কৈটলা ইউনিয়নের মাছখালী গ্রামে দুই পক্ষের সংঘর্ষে আয়নুল শেখ নামের একজন নিহত হয়েছেন। এতে উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়েছে। এ ছাড়া বাড়িঘর, দোকানপাট ভাঙচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটেছে।

জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে মাছখালী গ্রামের সালাউদ্দিন ও আতাই মেম্বরের লোকজনের মধ্যে এলাকায় প্রভাব বিস্তারকে কেন্দ্র করে বিরোধ চলে আসছিল। যা স্থানীয়ভাবে প্রামাণিক গোষ্ঠী ও শেখ গোষ্ঠীর দ্বন্দ্ব বলে পরিচিত। গত বুধবার সন্ধ্যায় বেড়া উপজেলা কৈটলা ইউনিয়নের মাছখালী গ্রামের হাবিবর প্রামাণিকের ছেলে মজিবর প্রামাণিক ও একই গ্রামের মিন্টু শেখের ছেলে আব্দুল্লাহর মধ্যে মাছ ধরার ঘটনা নিয়ে কথা-কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে মজিবরের ভাই রওশন এগিয়ে গেলে তাঁকেও মারধর করা হয়। এরই জের ধরে গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে মজিবর প্রামাণিক তাঁর লোকজনসহ লাঠিসোঁটা নিয়ে মিন্টু শেখের লোকজনের বাড়িতে হামলা করেন। এ সময় বাধা দিলে উভয় পক্ষ লাঠিসোঁটা, ইটপাটকেল নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে বেড়া থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদের ছত্রভঙ্গ করে তিনজনকে আটক করে। এ সময় আহত রওশন প্রামাণিক, আয়নুল হক, মিন্টু শেখ, মুবাই শেখ, ওসমান গনি, মোহাম্মদ আলী, কালু ও রমজানকে বেড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। অবস্থার আবনতি হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য আয়নুল শেখকে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে দুপুর ১২টার সময় তিনি মারা যান। আয়নুল শেখের মৃত্যুর খবর পেয়ে স্বজনরা শেখ গোষ্ঠীর লোকজন একত্রিত হয়ে প্রামাণিক গোষ্ঠী প্রায় ২০টি ঘরবাড়ি, দোকানপাট ভাঙচুর, লুটপাট করে প্রায় অর্ধ কোটি টাকার মালামাল নিয়ে যায়।

এ বিষয়ে বেড়া মডেল থানার ওসি শাহিদ মাহমুদ বলেন, ‘এ ঘটনায় তিনজনকে আটক করা হয়েছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে।’

মন্তব্য