kalerkantho

শুক্রবার । ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৫ জুন ২০২০। ১২ শাওয়াল ১৪৪১

আগুনে দুই গৃহবধূর মৃত্যু

১২ দোকান ছাই

ঝিনাইদহ, গাইবান্ধা ও হাতীবান্ধা (লালমনিরহাট) প্রতিনিধি   

১ এপ্রিল, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ঝিনাইদহের শৈলকুপায় রান্নাঘরে অগ্নিকাণ্ডে দগ্ধ হয়ে টুকটুকি বেগম নামের এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার নাকোইল গ্রামে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। গ্রামবাসী জানায়, নাকোইল গ্রামের স্বপন জোয়ারদারের স্ত্রী টুকটুকি বেগম ও শাশুড়ি শিউলী বেগম রান্নাঘরে রান্না করছিলেন। হঠাৎ সেখানে আগুন ধরে যায়। খবর পেয়ে ঝিনাইদহ ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে স্থানীয়দের সহযোগিতায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এর মধ্যে দগ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান টুকটুকি। আহত হন নিহতের স্বামী স্বপন ও তাঁর শাশুড়ি শিউলি বেগম। পুড়ে যায় পাঁচটি ঘর। আহতদের উদ্ধার করে ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ বিষয়ে ঝিনাইদহ ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের কর্মকর্তা দিলীপ কুমার সরকার বলেন, ‘বৈদ্যুতিক শর্ট সার্টিকের কারণে এ অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।’

এদিকে লালমনিরহাটের হাতীবান্ধায় গত সোমবার মধ্যরাতে পারভীন আক্তার নামের এক গৃহবধূ অগ্নিদগ্ধ হয়ে মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় গতকাল মঙ্গলবার তাঁর স্বামী জাহিদুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। জাহিদুল উপজেলার মধ্য গড্ডিমারী গ্রামের আবু বক্করের ছেলে।

জানা গেছে, ১৬ মার্চ রাত ১১টার দিকে রহস্যজনকভাবে অগ্নিদগ্ধ হন গৃহবধূ পারভীন আক্তার। তবে তাঁকে হাসপাতালে না নিয়ে বাড়িতেই চিকিৎসা দেওয়া হয়। পরে অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় এবং হাসপাতালে পুরোপুরি সুস্থ হওয়ার আগেই বাড়িতে নিয়ে আসা হয়। এ অবস্থায় গত সোমবার রাতে পারভীনের মৃত্যু হয়।

এ বিষয়ে হাতীবান্ধা থানার ওসি (তদন্ত) নজীর হোসেন বলেন, ‘ধারণা করা হচ্ছে, তাঁর স্বামীই তাঁর গায়ে আগুন দিয়েছে। তবে প্রকৃত ঘটনা ময়নাতদন্ত রিপোর্ট আসার পর বোঝা যাবে।’

অন্যদিকে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার পানিতলাহাটের মহিলা মার্কেটে এক ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এতে ১২টি দোকান পুড়ে ভস্মীভূত হয়েছে। গত সোমবার দিনগত রাত ১টার দিকে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা