kalerkantho

বুধবার । ৬ ফাল্গুন ১৪২৬ । ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ২৪ জমাদিউস সানি ১৪৪১

সংক্ষিপ্ত

ধরলেন ইউএনও ছাড়ল পুলিশ!

জয়পুরহাট প্রতিনিধি    

২৩ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



জয়পুরহাটের ক্ষেতলালে নদীর তলদেশ থেকে অবৈধভাবে বালু তোলার সময় আটক পৌর কাউন্সিলর খলিলুর রহমান পুলিশ হেফাজত থেকে পালিয়ে গেছেন বলে অভিযোগ। তবে ভিন্ন কথা বলছে পুলিশ। এ ছাড়া একই সময় আটক এস্কভেটর-চালককে ভ্রাম্যমাণ আদালতে কারাদণ্ড দিয়ে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। 

গত মঙ্গলবার বিকেলে তুলসীগঙ্গা নদীর পাঁচগেট এলাকায় ঘটনাটি ঘটে।  

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আরাফাত রহমান জানান, বাঁধ কেটে নদীর তলদেশ থেকে এস্কাভেটর মেশিন দিয়ে বালু তোলার অভিযোগ পেয়ে মঙ্গলবার পুলিশ নিয়ে ঘটনাস্থলে অভিযান চালানো হয়। এ সময় ক্ষেতলাল পৌরসভার তিন নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর খলিলুর রহমান ও এস্কাভেটর-চালক ফরিদ উদ্দিনকে আটক করা হয়। সঙ্গে সঙ্গে আটককৃতদের ক্ষেতলাল থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক মুনিরুল ইসলামের হেফাজতে দেওয়া হয়। কিন্তু সেখান থেকে পৌর কাউন্সিলর দৌড়ে পালিয়ে যান। ধাওয়া করেও পুলিশ তাঁকে ধরতে পারেনি।

পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে ফরিদকে তিন মাসের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়ে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা