kalerkantho

শনিবার । ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ৯ রবিউস সানি ১৪৪১     

কর্মস্থল চরফ্যাশনে বরিশালে হাজিরা

চরফ্যাশন (ভোলা) প্রতিনিধি   

৪ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চরফ্যাশন পৌরসভার দক্ষিণ ফ্যাশন নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মনজুর হোসেন ১০ বছর ধরে বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত। কিন্তু হাজিরা খাতায় নিজেকে উপস্থিত দেখিয়ে বেতন নিয়মিতই তুলে নিচ্ছেন। হাজিরা খাতায় উপস্থিত থাকলেও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা একাধিকবার স্কুল পরিদর্শনে গিয়েও তাঁকে বিদ্যালয়ে পাননি।

সরেজমিনে গিয়ে জানা গেছে, বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক এরফান হাসান মফিজ বরিশাল গিয়ে হাজিরা খাতাসহ গুরুত্বপূর্ণ কাগজপত্রে প্রধান শিক্ষকের স্বাক্ষর নিয়ে আসেন। মফিজ জানান, চিকিৎসা ছুটি নিয়ে প্রধান শিক্ষক পরিবার-পরিজনসহ বরিশালে অবস্থান করছেন।

অভিভাবক ও এলাকাবাসীর অভিযোগের ভিত্তিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রুহুল আমিন গত ২৫ সেপ্টেম্বর বিদ্যালয় পরিদর্শনে গিয়ে প্রধান শিক্ষক কাজী মনজুর হোসেনকে অনুপস্থিত পান। তাই তাঁর বেতন-ভাতা কর্তনসহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ইউএনও জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার কাছে সুপারিশ করেন। উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা জিয়াউল হক মিলন বিদ্যালয় পরিদর্শনে গিয়ে হাজিরা খাতায় প্রধান শিক্ষককে মাত্র পাঁচ দিন অনুপস্থিত পেয়েছেন। তবে বিদ্যালয় ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি মাহাবুবুর রহমান এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

প্রধান শিক্ষক মনজুর হোসেন বলেন, ‘বিভিন্ন প্রেক্ষাপটে পরিবার-পরিজনসহ বরিশালে অবস্থানের কারণে নিয়মিত কর্মস্থলে উপস্থিত হতে পারি না। তবে বছরের পর বছর বিদ্যালয়ে অনুপস্থিতির অভিযোগ সত্য নয়।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা