kalerkantho

সোমবার । ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯। ১ পোষ ১৪২৬। ১৮ রবিউস সানি                         

তালায় আমন নষ্ট কৃষকের স্বপ্ন চুরমার

তালা (সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি   

১৫ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



তালায় আমন নষ্ট কৃষকের স্বপ্ন চুরমার

সাতক্ষীরা সদর উপজেলার পাথরঘাটায় ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের আঘাতে আমন ক্ষেতে থইথই পানি। ছবিটি গত বুধবার দুপুরে তোলা। ছবি : কালের কণ্ঠ

বুক ভরা আশা নিয়ে আমন চাষ করেছিলেন সাতক্ষীরার তালার কৃষকরা। মাত্র কয়েক দিন আগেও সোনালি ধান ঘরে তোলার স্বপ্নে বিভোর ছিলেন তাঁরা। এরই মধ্যে ধানে পাক ধরতে শুরু করেছিল। ঠিক সেই সময়ে কৃষকের স্বপ্ন ভেঙে দিয়েছে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল।

স্থানীয়দের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের আঘাতে তালা উপজেলায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। সরেজমিনে বুলবুল-পরবর্তী বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, উপজেলার ধানদিয়া, নগরঘাটা, সরুলিয়া, কুমিরা, তেঁতুলিয়া, খলিশখালী, মাগুরা, ইসলামকাটি, খেশরা, জালালপুর, তালা ও খলিলনগর ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকার জমিতে লাগানো আমন ধান এখন পর্যন্ত পানির নিচে নিমজ্জিত রয়েছে। ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে বৃষ্টি ও ঝোড়ো হাওয়ায় ধানসহ বিভিন্ন ফসলের ক্ষতি হয়েছে। বিশেষ করে পাকা ও আধাপাকা ধান হেলে তলিয়ে যাওয়ায় সেগুলো দ্রুত কেটে ঘরে তুলতে না পারলে সম্পূর্ণ নষ্ট হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের তাণ্ডবে জমিতে থাকা শীতকালীন বিভিন্ন সবজি নষ্ট হয়ে গেছে। লাল শাক, পালং শাক, মুলা, ফুলকপি, বাঁধাকপি, করোলা, বেগুন, পেঁপেসহ বিভিন্ন গাছ ঝড়ের কারণে জমিতে হেলে পড়ে রয়েছে। তবে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন পেঁপে, কলা ও পান চাষিরা। সব পেঁপে, কলাগাছ ও পানের বরজ ভেঙে গেছে। অনেক কৃষক ঋণ নিয়ে সবজি ও পান চাষ করেছিলেন। এখন তাঁদের মাথায় হাত।

ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে উপজেলার প্রায় চার হাজার কাঁচা-আধাপাকা বাড়িঘর, স্কুল বিধ্বস্ত হয়েছে। উপড়ে পড়েছে হাজার হাজার গাছ। তলিয়ে গেছে কয়েক শ মৎস্য ঘের। রাস্তাঘাটের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। বিভিন্ন স্থানে বিদ্যুতের খুঁটি উপড়ে পড়ায় এলাকা বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। প্রায় ২১ হাজার লোক এ তাণ্ডবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে জানান উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. মাহফুজুর রহমান।

তালা উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা শুভ্রাংশু শেখর দাশ জানান, ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের তাণ্ডবে উপজেলায় মোট ক্ষতি হয়েছে ১৮১ হেক্টর জমির ফসল। এর মধ্যে ১৫০ হেক্টর জমির আমন ধান প্রায় নষ্ট হয়ে গেছে। তিনি জানান, ঘূর্ণিঝড় বুলবুল-পরবর্তী উপজেলার ক্ষতিগ্রস্ত বিভিন্ন এলাকা পরিদর্শন করে তিনি চাষিদের পরামর্শ দিচ্ছেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা