kalerkantho

সোমবার । ১৮ নভেম্বর ২০১৯। ৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২০ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

গাইবান্ধা নাটোরে নবজাতকসহ তিনজনের লাশ

গাইবান্ধা ও নাটোর প্রতিনিধ   

২০ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সদর উপজেলার কুমারপাড়া এলাকায় গাইবান্ধা-দাড়িয়াপুর সড়কের পাশ থেকে পলিথিনে মোড়ানো অবস্থায় নবজাতকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল শনিবার দুপুরে লাশটি উদ্ধার করা হয়। গাইবান্ধা সদর থানার ওসি খান মোহাম্মদ শাহরিয়ার জানান, কে বা কারা লাশটি ফেলে রেখে গেছে তা জানা যায়নি।

অন্যদিকে সাদুল্যাপুর উপজেলার গোবিন্দরায় দেবত্তোর গ্রামে আমগাছ থেকে ইমাম মাওলানা আবুল কালাম আজাদের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল দুপুরে লাশটি উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। আজাদ পাশের পলাশবাড়ী উপজেলার দুর্গাপুর গাবেরদিঘি এলাকার জামে মসজিদের পেশ ইমাম ছিলেন। ঘটনার আগের দিন শুক্রবার সকালে বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর তিনি নিখোঁজ হন।

পরিবারের দাবি, সুদের টাকা দেওয়া নিয়ে বিরোধের জেরে পলাশবাড়ীর দাদন ব্যবসায়ী শাহারুল ইসলাম ও তাঁর সহযোগীরা আজাদকে হত্যা করেছে। এ ব্যাপারে হত্যা মামলার প্রস্তুতি চলছে। সাদুল্যাপুর থানার

ওসি মাসুদ রানা বলেন, ‘ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে বিস্তারিত বলা

যাবে।’

এ ছাড়া নাটোরের নলডাঙ্গার পীরগাছা এলাকা থেকে গতকাল সকালে কলেজছাত্রী মোছা. তামান্না খাতুন প্রিয়ার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিনি রাজশাহীর বাগমারার সমসপাড়া গ্রামের মো. আব্দুর রশীদের মেয়ে ও পুঠিয়ার সাধনপুর পঙ্গু শিশু নিকেতন সমন্বিত অবৈতনিক ডিগ্রি কলেজের এইচএসসির প্রথম বর্ষের ছাত্রী ছিল।

প্রিয়ার মামা মাসুদ হোসেনের অভিযোগ, তাঁর ভাগ্নিকে একই কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র, পুঠিয়ার শিলমারিয়া ইউনিয়ন পরিষদের (্ইউপি) চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা সাজ্জাদ হোসেন মুকুলের ভাগ্নে অপহরণের পর হত্যা করেছে। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

তবে নলডাঙ্গা থানার ওসি (তদন্ত) মো. উজ্জল হোসেন বলেন, ‘ঘটনাটি হত্যা না আত্মহত্যা—তা এখনো জানা যায়নি।’

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা