kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৯ নভেম্বর ২০১৯। ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২১ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

সৈয়দপুর

মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী-সন্তানের জমি দখল করে ঘর

সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি   

২০ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সৈয়দপুর পৌরসভা এলাকায় মুক্তিযোদ্ধা মৃত এস এম সোলায়মান বসুনিয়ার স্ত্রী ও তাঁর তিন সন্তানের ক্রয়কৃত জমি দখলের অভিযোগ উঠেছে। স্কুল শিক্ষক মো. সালাউদ্দিন দুলু ও শ্রম কল্যাণ কেন্দ্রের কর্মচারী মো. আবুল কাশেমের বিরুদ্ধে ওই জমি দখলের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী মোছা মিনারা বেগম বাদী হয়ে গত ১৫ অক্টোবর সৈয়দপুর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন। অভিযোগ পেয়ে রাতেই সৈয়দপুর থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। পুলিশ উভয় পক্ষের কাগজপত্র দেখে অভিযুক্তদের জমির দখল ছাড়তে বলা হয়। কিন্তু গতকাল শনিবার সকাল পর্যন্ত তাঁরা দখল ছাড়েননি।

থানায় দেওয়া অভিযোগে বলা হয়, সৈয়দপুর শহরের পুরাতন বাবুপাড়া এলাকার মুক্তিযোদ্ধা মৃত এস এম সোলায়মান বসুনিয়ার স্ত্রী, দুই ছেলে এবং এক মেয়ে রয়েছে। তাঁর স্ত্রী নিজের ও তিন সন্তানের নামে সৈয়দপুর-পার্বতীপুর সড়কের পাশে সরওয়ারদী আলম নামের এক ব্যক্তির কাছ থেকে সাত শতক জমি কেনেন। গত ১৪ অক্টোবর মিনারা আমিন (জমি পরিমাপক) নিয়ে ক্রয়কৃত জমি মাপজোখ করে সীমানা চিহ্নিত করেন এবং বাঁশের খুঁটি দিয়ে দেন। কিন্তু সন্ধ্যার দিকে পাশের জমির মালিক স্কুল শিক্ষক সালাউদ্দিন ও সৈয়দপুর শ্রম কল্যাণ কেন্দ্রের কর্মচারী আবুল কাশেম জমির সীমানা খুঁটি উপড়ে ফেলেন। তাঁরা সেখানে নতুন ঢেউটিন দিয়ে সীমানা ঘিরে চালাঘর নির্মাণ করেন।

অভিযুক্ত আবুল কাশেম মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী-সন্তানদের কেনা জমি দখলের বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, ‘আমরা যখন জমিটি ক্রয় করি তখন পুরো জমিটির একমাত্র এসএ দাগ ছিল। বর্তমানে একটি দাগ ভেঙে তিনটি দাগ হয়েছে। তা ছাড়া আগে থেকে আমরা কেনা জমির অংশে ছোট আকারে পাকা সীমানা প্রাচীর দিয়ে রেখেছি।’

সৈয়দপুর থানার পরিদর্শক (অপারেশন) মো. আতাউর রহমান বলেন, ‘ওই জমি থেকে অভিযুক্তদের ঢেউটিনসহ সব অবকাঠামো সরিয়ে নিতে বলা হয়েছে।’

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা