kalerkantho

রাজশাহীতে যুবককে ট্রাকে হত্যা

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী   

৯ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



রাজশাহীতে কলেজছাত্রকে হত্যার মাত্র এক দিন পরই আরেকটি খুনের ঘটনা ঘটল। গত বুধবার রাতে নগরীর নওদাপাড়া এলাকায় ছদ্মবেশী ছিনতাইকারীরা জরিপ মৃধাকে (৩৫) হত্যা করে। তিনি নাটোরের সিংড়ার মহিষপাড়া গ্রামের আলাল মৃধার ছেলে। গরু কিনতে বাবা ও চাচার সঙ্গে সিংড়া থেকে রাজশাহীতে এসেছিলেন জরিপ। তাঁকে হত্যার পর ছিনতাইকারীরা তাঁরই বাবা-চাচার কাছ থেকে আড়াই লাখ টাকা ছিনিয়ে নেয় বলে অভিযোগ। পরে ট্রাক থেকে তাঁর লাশসহ বাবা ও চাচাকে ফেলে পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে।

আলাল ও তাঁর ভাই রাশিদুল মৃধা অভিযোগ করেন, তাঁরা ও জরিপ একসঙ্গে সিংড়া থেকে গরু কিনতে রাজশাহীর সিটি বাইপাস হাটে আসেন। তাঁদের কাছে আড়াই লাখ টাকা ছিল। কিন্তু দরদামে মিল না হওয়ায় গরু কিনতে পারেননি তাঁরা। পরে তাঁরা নগরীর নওদাপাড়া আমচত্বরে যান। সেখানে ট্রাকের চালক ও সহকারী চালকের সঙ্গে ভাড়া মিটিয়ে বাড়ির উদ্দেশে রওনা দেন। তাঁদের তিনজনকেই ট্রাকের কেবিনে বসানো হয়। কিছুদূর যেতে না যেতেই আরো দু-তিনজনকে ট্রাকে তোলা হয়। এরপর পথের মধ্যেই জরিপের মাথায় হাতুড়ি দিয়ে আঘাত করা হয়। এতে তিনি মারা যান। কিন্তু বিষয়টি তাঁরা কেউই টের পাননি।

জরিপকে হত্যার পর ট্রাকটি নাটোরের দিকে না নিয়ে বিভিন্ন দিকে ঘোরানো হয়। এ সময় ট্রাকের চালকসহ অন্যরা তাঁদের নানাভাবে হুমকি দিতে থাকে। একপর্যায়ে তাঁদের কাছে থাকা আড়াই লাখ টাকাও ছিনিয়ে নেয়। পরে রাজশাহীর আমচত্বর-বেলপুকুর বাইপাসের মাঝামাঝি নগরীর কুখণ্ডি এলাকায় বিলের মধ্যে নিয়ে জরিপের লাশসহ তাঁদের ট্রাক থেকে ছুড়ে ফেলে দেয় তারা।

এ সময় পথচারীরা তাঁদের উদ্ধার করে পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে জরিপের লাশ উদ্ধার করে।

নগর পুলিশের মুখপাত্র গোলাম রুহুল কুদ্দুস বলেন, ‘একটি ছিনতাইকারীচক্রের সদস্যরা হত্যাকাণ্ডটি ঘটিয়েছে। তারা গরু কিনতে আসা ব্যবসায়ী বা ব্যক্তিদের টার্গেট করেই ওত পেতে ছিল। সেই ফাঁদে পা দেন নাটোরের তিন ব্যক্তি। তাঁরা ছিনতাইকারীদের চিনতে না পেরে ট্রাকে ওঠেন। এতেই সর্বনাশটি হয়েছে।’

পুলিশের এ কর্মকর্তা আরো বলেন, ‘হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িতদের খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে। তাঁরা কোন ট্রাকে উঠেছিলেন, সেই ট্রাকটি চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে। সেটি চিহ্নিত করা গেলেই জরিপকে হত্যা ও ছিনতাইয়ের সঙ্গে কারা জড়িত ছিল, সেটি পরিষ্কার হওয়া যাবে। এ ঘটনায় থানায় মামলা করা হয়েছে। জরিপের বাবা আলাল মৃধা বাদী হয়ে মামলাটি করেছেন। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্ত শেষে পরিবারের সদস্যদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।’

প্রসঙ্গত, এর আগে গত মঙ্গলবার কোরবানি ঈদের ছুটিতে বাড়ি ফেরার পথে রাজশাহী নগরীর হেতেম খাঁ এলাকায় খুন হন কলেজছাত্র ফারদিন ইসনা আশারিয়া ওরফে রাব্বি। তিনি রাজশাহী সরকারি সিটি কলেজের ছাত্র ও দিনাজপুরের পার্বতীপুরের মমিনপুর গ্রামের মৃত মোজাফফরের ছেলে। রাজশাহী স্টেশনে যাওয়ার পথে দুর্বৃত্তরা তাঁকে কুপিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় যুবলীগ নেতা রবিনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা