kalerkantho

শনিবার । ৪ আশ্বিন ১৪২৭। ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০। ১ সফর ১৪৪২

এক উপজেলায় দেহ অন্য উপজেলায় মাথা

জামালপুর প্রতিনিধি   

৫ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



নিখোঁজের দুদিন পর গতকাল রবিবার জামালপুরের মেলান্দহে ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী হাসেন আলীর (৫৫) মাথাবিহীন বিবস্ত্র দেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এর ঘণ্টাখানেকের মধ্যে ইসলামপুরে একই নদ থেকে তাঁর মাথা উদ্ধার করা হয়। পুলিশের ধারণা, দুর্বৃত্তরা হাসেন আলীকে হত্যার পর লাশ ব্রহ্মপুত্রের আলাদা আলাদা স্থানে ফেলে গেছে। ময়নাতদন্তের জন্য লাশটি সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

হাসেন ইসলামপুরের সভুকূড়া গ্রামের ইয়াজ উদ্দিনের ছেলে। গত শুক্রবার রাত থেকে তিনি নিখোঁজ ছিলেন। 

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, লোকমুখে খবর পেয়ে সংশ্লিষ্ট থানা-পুলিশ গতকাল দুপুরে মেলান্দহের কাঙালকুর্শা গ্রামে ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে অর্ধগলিত ও বিবস্ত্র অবস্থায় অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির মাথাবিহীন দেহ উদ্ধার করে। খবর পেয়ে হাসেন আলীর ছেলে রইদা চান ঘটনাস্থলে গিয়ে দেহটি তাঁর নিখোঁজ বাবার বলে শনাক্ত করেন। এর ঘণ্টাখানেকের মধ্যে ইসলামপুরের চরচারিয়া এলাকায় একই নদ থেকে অজ্ঞাত ব্যক্তির মাথা উদ্ধার করে সংশ্লিষ্ট থানা-পুলিশ। খবর পেয়ে স্বজনরা থানায় গিয়ে মাথাটি হাসেন আলীর বলে শনাক্ত করেন।

 

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা