kalerkantho

মঙ্গলবার । ১২ ফাল্গুন ১৪২৬ । ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ৩০ জমাদিউস সানি ১৪৪১

মনোভূমি

বিদায় লাল শাড়ি

২১ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



সালতামামি অর্থাত্ একটি বছরের সমাপ্তি। কিন্তু তাই বলে কি একটু একটু করে জমে থাকা স্মৃতিরও সমাপ্তি! একটি ট্রেনিং সেন্টারে দীর্ঘ সময় থাকার সুবাদে কত শত স্মৃতির মধ্যে লাল শাড়ির সেই মেয়েটির কথা রবে চির অমলিন! কোনো এক শীতে অতিথি পাখির মতো আগমন, আবার এমনই এক শীতে বছর শেষে অতিথি পাখির মতো বিদায়! লাল শাড়ির সেই মেয়েটি আর হয়তো সম্মুখ পানে দাঁড়িয়ে বলবে না, ‘কেমন আছ!’ হয়তো বা আর আঁখি পানে চেয়ে থাকা হবে না দুজনের। লাল শাড়ির সেই মেয়েটির সঙ্গে হবে না আর কোনো খুনসুটি। হয়তো কিঞ্চিত্ টান আর কিছুটা আবেগ নিয়ে বলবে না, ‘আমার খোঁজ নাও না কেন? এত ব্যস্ততা কেন তোমার!’ ঠিক তখনই শুধু বিশ্বকবির সেই গানটির কথা মনে পড়ে—‘‘অনেক কথা যাও যে ব’লে কোনো কথা না বলি, তোমার ভাষা বোঝার আশা দিয়েছি জলাঞ্জলি।’’

নতুন বছর, নতুন জীবন। মানুষের জীবনের চাওয়া-পাওয়ার ব্যবধান যতই কমবেশি হোক না কেন, জীবন ঠিকই জীবনের বয়ে চলা বহতা নদীর মতো। কৃষ্ণচূড়ার ফুল ঠিকই সৌন্দর্য বিলিয়ে যাবে অনন্তকাল। কদমগুচ্ছ নিয়ে কেউ না কেউ দাঁড়িয়ে থাকবে প্রিয়জনের প্রতীক্ষায়। লাল গোলাপ নিয়ে কেউ না কেউ দাঁড়িয়ে থাকবে তার প্রিয় মানুষটির জন্য। শুধু মোর সাজানো বাগান যেন আর জ্যোতি ছড়াবে না। কল্পনার ঘরে তালা দিয়ে ব্যথাতুর হূদয় আর কখনো ব্যাকুল হবে না। মোর সাজানো বাগান স্বপ্ন আর সত্যের মিশেলে আর কখনো কাছে টানবে না! স্বার্থ আর শর্তের জীবনের মিশেল ক্রোধ আর করুণার সুখনিদ্রাকে অনন্তকালের জন্য ওপারে পাঠিয়ে দেয়। শুনেছি, আবহাওয়ার মতো কোনো কোনো মানুষের মন হঠাত্ বদলে যায়। জীবন নাকি দুলাভাইয়ের মতো; সব সময় তামাশা করে! বিস্মৃতির চাদরে ঢাকা যে জীবন, সে জীবনে যত স্মৃতি ততই যেন অশ্রুজল! জলের মাছ জল পান করলে যেমন টের পাওয়া যায় না, তেমনি কাঁটার আঘাতময় জীবনে দুঃখ-কষ্ট জগদ্দল পাথরের মতো চেপে বসলেও কিছুই মনে হয় না! হতোদ্যম নয়ন আর খুঁজে ফিরবে না লাল শাড়িকে। সব পাখি পোষ মানে না, ঘরেও ফিরে না! সৃষ্টিকর্তার সব সৃষ্টির মাঝেই রয়েছে অনন্ত আনন্দ। প্রেম-ভালোবাসা কেন সব সৃষ্টির সঙ্গে হতে পারে না! কেন বৃক্ষের সঙ্গে, প্রাণীর সঙ্গে, ফুলের সঙ্গে ভালোলাগা-ভালোবাসা হতে পারে না! প্রেম-ভালোবাসাকে আবদ্ধ করে রাখলে জীবন অসার হয়ে পড়ে। তবু কিছু কিছু স্মৃতি কখনো মলিন হয় না, বিদায় বেলায় তো নয়-ই।   

সাধন সরকার

৫/এ নারিন্দা লেন, নারিন্দা, সূত্রাপুর, ঢাকা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা