kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০২২ । ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ । ১৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

বাংলা একাডেমিতে শুরু হচ্ছে রাধারমণ লোকসংগীত উৎসব

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৪ নভেম্বর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



১১ বছর ধরে সুরসাধক রাধারমণের স্মরণে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মাঠে আয়োজিত হয়ে আসছে ‘রাধারমণ লোকসংগীত উৎসব’। এবার যুগপূর্তি উৎসব হবে বাংলা একাডেমির নজরুল মঞ্চে। তিন দিনব্যাপী অনুষ্ঠান শুরু হবে আগামীকাল শুক্রবার থেকে। প্রতিদিন বিকেল সাড়ে ৪টায় শুরু হয়ে উৎসব চলবে রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত।

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার উৎসবের উদ্বোধন করবেন সুনামগঞ্জের প্রবীণ কীর্তনীয়া যশোদা রানী সূত্রধর। প্রথম দিন প্রধান অতিথি হিসেবে থাকবেন সংস্কৃতিবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ। বিশেষ অতিথি থাকবেন সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আবুল মনসুর, বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক কবি মুহম্মদ নূরুল হুদা ও নাট্যব্যক্তিত্ব রামেন্দু মজুমদার। এদিন আলোচক হিসেবে থাকবেন লোকসংগীত গবেষক সুমনকুমার দাশ।

গতকাল বুধবার শিল্পকলা একাডেমিতে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান আয়োজক সংস্থা রাধারমণ সংস্কৃতিচর্চা কেন্দ্রের সভাপতি মাহমুদ সেলিম। তিনি বলেন, রাধারমণের গান ছাড়াও এবার সৈয়দ শাহনূর, হাসন রাজা, আরকুম শাহ, উকিল মুন্সি, শাহ আবদুল করিম, দুর্বিন শাহ প্রমুখের গান পরিবেশন করা হবে। উৎসবে একক সংগীত পরিবেশন করবেন অণিমা মুক্তি গমেজ, আবুবকর সিদ্দিক, তুলিকা ঘোষ চৌধুরী, শাহনাজ বেলী, বাউল আব্দুর রহমান, রনেশ ঠাকুর, বাউল গোলাপ মিয়া, বিমান চন্দ্র বিশ্বাস, বাউল বসিরউদ্দিন, বাউল আমীর আলীসহ সিলেট, সুনামগঞ্জ ও দেশের অন্যান্য অঞ্চল থেকে আসা শতাধিক শিল্পী। দলীয় সংগীত পরিবেশন করবে মরমী লোকসংগীত শিল্পীগোষ্ঠী ফোক বাংলা, সৃজনশীল গানের দল ‘নিবেদন’, লোকাঙ্গন ও রাধারমণচর্চাকারী দল। নৃত্য পরিবেশন করবে নৃত্যাঙ্গ, বেণুকা ললিতকলা একাডেমি, স্পন্দন ও সুনামগঞ্জের ধামাইল দল।

সংবাদ সম্মেলনে রাধারমণ সংস্কৃতিচর্চা কেন্দ্রের সাধারণ সম্পাদক ড. বিশ্বজিৎ রায় বলেন, ‘রাধারমণ লোকসংগীত উৎসব শুরু হওয়ার পর থেকে দেশে রাধারমণের গানের চর্চা অনেক বেড়েছে। ২০১৫ সালে সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে রাধারমণ কমপ্লেক্সের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হলেও এর নির্মাণ কাজ শুরু হচ্ছে না কোনো অজানা কারণে।



সাতদিনের সেরা