kalerkantho

সোমবার । ২৮ নভেম্বর ২০২২ । ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

সংক্ষিপ্ত

নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তে মাইন বিস্ফোরণে রোহিঙ্গার পা বিচ্ছিন্ন

বিশেষ প্রতিনিধি, কক্সবাজার   

৬ অক্টোবর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তের শূন্যরেখায় গত মঙ্গলবার মাইন বিস্ফোরণে আবদুল কাদের নামের এক রোহিঙ্গার পা উড়ে গেছে।

গুরুতর অবস্থায় মঙ্গলবার দিবাগত রাতে কাদেরকে (৫০) কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য সেখান থেকে তাঁকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। এ নিয়ে গেল তিন সপ্তাহে তিনটি মাইন বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটল।

বিজ্ঞাপন

এসব ঘটনায় এক রোহিঙ্গা নিহত এবং দুই বাংলাদেশি ও এক রোহিঙ্গার পা বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

মঙ্গলবার বিকেলে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার সদর ইউনিয়নের আসারতলী ৪৪ নম্বর সীমান্ত পিলারের কাছে মিয়ানমারের পুঁতে রাখা স্থলমাইন বিস্ফোরণে আহত আবদুল কাদের একই ইউনিয়নের ছনখোলা ছেরাকুল এলাকার মীর আহমদের ছেলে। ২০১৭ সালে আবদুল কাদের মিয়ানমারের রাখাইন থেকে পালিয়ে এসে এখানে আশ্রয় নেন। আহত আবদুল কাদেরের স্বজন মোহাম্মদ হোসেন জানান, সীমান্তের কাঁটাতারের কাছে গিয়ে কাদের নিজের গরু আনতে গেলে মাইন বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। বিস্ফোরণে তাঁর ডান পা বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। নাইক্ষ্যংছড়ি সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল আবছার ইমন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।

 



সাতদিনের সেরা