kalerkantho

শুক্রবার । ২ ডিসেম্বর ২০২২ । ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

নবীন রোহিঙ্গা শিল্পীদের কাজে জাগরণের রং

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৫ আগস্ট, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নবীন রোহিঙ্গা শিল্পীদের কাজে জাগরণের রং

ধানমণ্ডির এডওয়ার্ড এম কেনেডি (ইএমকে) সেন্টারে রোহিঙ্গা সংস্কৃতির নবজাগরণ’ শীর্ষক প্রদর্শনী চলছে। ছবি : কালের কণ্ঠ

‘রোহিঙ্গা রোসোমর সোলা ফেরা’ বা ‘রোহিঙ্গা সংস্কৃতির নবজাগরণ’ শিরোনামে বিশেষ চিত্রকর্ম প্রদর্শনী চলছে ধানমণ্ডির এডওয়ার্ড এম কেনেডি (ইএমকে) সেন্টারে। আয়োজকদের কথায়, বাংলাদেশে এটিই শরণার্থী শিবিরের রোহিঙ্গাদের আঁকা চিত্রকর্মের প্রথম প্রদর্শনী।

‘রোহিঙ্গা সংস্কৃতির নবজাগরণ’ প্রদর্শনীটি সাজানো হয়েছে ভাসানচর ও কক্সবাজারের রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বসবাসরত আট থেকে ১৮ বছর বয়সী ৩০ জন শিল্পীর কাজ দিয়ে। প্রদর্শনীটি সাজিয়েছেন আয়োজক সংস্থা আর্টোলিউশনের সহপ্রতিষ্ঠাতা ম্যাক্স ফ্রাইডার।

বিজ্ঞাপন

 

বিষয়বস্তু হিসেবে শিল্পীরা নিজেদের আত্মপ্রতিকৃতি, জীবনসংগ্রাম, নতুন ভবিষ্যতের জন্য জিইয়ে রাখা স্বপ্ন এবং একই সঙ্গে ফেলে আসা স্বজন ও আপন ঠিকানা এঁকেছে মমতার রঙে। রং আর রেখায় মাতৃভূমিতে পাওয়া শারীরিক ও মানসিক আঘাতের সঙ্গে পরবাসের অনিশ্চিত জীবনের কষ্ট তুলে এনেছে শিল্পীরা। সামান্য সম্বল নিয়ে বা শুধু প্রাণ হাতে করে নাফ নদী পাড়ি দিয়ে রোহিঙ্গাদের এ দেশে প্রবেশের দৃশ্য ছোট-বড় আকারে ক্যানভাসে এসেছে। তবে তার চেয়ে বেশি এসেছে শরণার্থী জীবন। ক্যাম্পের ছোট ছোট কাঁচাঘর, তার চারপাশে ফুলের গাছ আর মানুষের মুখ এসেছে বেশ কয়েকটি ছবিতে।

মোট ৩৫টি শিল্পকর্ম নিয়ে এ প্রদর্শনী যৌথভাবে আয়োজন করেছে ইএমকে সেন্টার ও আর্টোলিউশন। কয়েকজন শিল্প প্রশিক্ষকের সহযোগিতায় ৩০ জন রোহিঙ্গা শিল্পী এই শিল্পকর্মগুলো নির্মাণ করেছে। প্রদর্শনীর সহায়তায় রয়েছে ইউএনএইচসিআর ও ইউএনএফপিএ।

শুক্রবার ও সরকারি ছুটির দিন ছাড়া ৩১ আগস্ট পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত প্রদর্শনী সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে।



সাতদিনের সেরা