kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৬ আগস্ট ২০২২ । ১ ভাদ্র ১৪২৯ । ১৭ মহররম ১৪৪৪

রফিকুল আমীনের আপিল গ্রহণ ২০০ কোটি টাকা জরিমানা স্থগিত

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৫ জুলাই, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গ্রাহকের অর্থ আত্মসাৎ ও পাচারের দায়ে ১২ বছরের কারাদণ্ডাদেশের বিরুদ্ধে ডেসটিনির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) রফিকুল আমীনের আপিল শুনানির জন্য গ্রহণ করেছেন হাইকোর্ট।

বিচারিক আদালতের রায়ে ২০০ কোটি টাকা জরিমানার আদেশ স্থগিত করে বিচারপতি এস এম কুদ্দুস জামান ও বিচারপতি মো. রিয়াজ উদ্দিন খানের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন। গতকাল সোমবার রফিকুল আমীনের আইনজীবী উজ্জ্বল কুমার ভৌমিক আপিল গ্রহণের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

আইনজীবী কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘১২ বছরের কারাদণ্ডাদেশ ও জরিমানার দায় থেকে খালাস চেয়ে আপিলটি করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

গত ২২ জুন আপিলটি শুনানির জন্য গ্রহণ করে ২০০ কোটি টাকা জরিমানার আদেশটি স্থগিত করেছেন এবং রায়সহ মামলার সব নথি তলব করেছেন হাইকোর্ট। ’

আপিলের সঙ্গে রফিকুল আমীনের জামিন আবেদন ছিল কি না জানতে চাইলে উজ্জ্বল কুমার ভৌমিক বলেন, ‘এখন পর্যন্ত বিচারিক আদালতের রায়ের প্রত্যায়িত অনুলিপি পাইনি। পেলে জামিন আবেদন করা হবে। ’  

ডেসটিনি মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ সোসাইটির প্রায় এক হাজার ৮৬১ কোটি টাকা আত্মসাৎ ও পাচারের অভিযোগে ১০ বছর আগে মামলা করেছিল দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। মামলায় অভিযুক্ত ৪৬ আসামির সবাই দোষী উল্লেখ করে গত ১২ মে রায় দেন ঢাকার চতুর্থ বিশেষ জজ আদালতের বিচারক শেখ নাজমুল আলম।

রায়ে ডেসটিনি গ্রুপের প্রেসিডেন্ট সাবেক সেনাপ্রধান হারুন-অর-রশিদ এবং ব্যবস্থাপনা পরিচালক রফিকুল আমীনসহ ৪৬ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ডাদেশ এবং তাঁদের দুই হাজার ৩০০ কোটি টাকা জরিমানা করেন বিচারিক আদালত।

এর মধ্যে রফিকুল আমীনকে ১২ বছর কারাদণ্ড ও ২০০ কোটি টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরো তিন বছরের সাজা দেওয়া হয়। আর হারুন-অর-রশিদকে চার বছর কারাদণ্ড ও সাড়ে তিন কোটি টাকা অর্থদণ্ড, অনাদায়ে আরো ছয় মাসের কারাদণ্ডাদেশ দেন বিচারক।

 



সাতদিনের সেরা