kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১১ আগস্ট ২০২২ । ২৭ শ্রাবণ ১৪২৯ । ১২ মহররম ১৪৪৪

বসুন্ধরার ত্রাণ পেল ১৪০০ বন্যার্ত পরিবার

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১ জুলাই, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বসুন্ধরার  ত্রাণ পেল ১৪০০ বন্যার্ত পরিবার

বসুন্ধরা ফুড অ্যান্ড বেভারেজ এবং বসুন্ধরা মাল্টি ফুড লিমিটেডের উদ্যোগে এক হাজার ৪০০ বন্যার্ত পরিবারকে খাদ্যসহায়তা দেওয়া হয়েছে। ছবি : কালের কণ্ঠ

বসুন্ধরা ফুড অ্যান্ড বেভারেজ এবং বসুন্ধরা মাল্টি ফুড লিমিটেডের উদ্যোগে এক হাজার ৪০০ বন্যার্ত পরিবারকে খাদ্যসহায়তা দেওয়া হয়েছে। সপ্তাহজুড়ে বিভিন্ন জেলার পাঁচটি উপজেলায় ত্রাণ হিসেবে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। গতকাল বৃহস্পতিবার বৃষ্টি উপেক্ষা করে বন্যার্ত মানুষের হাতে ত্রাণ তুলে দেন বসুন্ধরা গ্রুপের কর্মীরা।

স্থানীয়রা জানায়, বন্যায় আয়-রোজগার বন্ধ হয়ে গেছে।

বিজ্ঞাপন

কোথাও কাজকর্ম নেই। ত্রাণ পেয়ে বেশ উপকার হয়েছে তাদের।

সিলেটের জৈন্তাপুর ও কোম্পানীগঞ্জ, সুনামগঞ্জের বিশ্বম্ভরপুর, কিশোরগঞ্জের মিঠামইন এবং কুড়িগ্রামের চিলমারীর বন্যাকবলিত এলাকায় এসব ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করা হয়।

কুড়িগ্রামের উলিপুর ইউনিয়নের সংরক্ষিত আসনের সদস্য কল্পনা বেগম বলেন, ‘আমরা বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম থেকে জানতে পারি,  বসুন্ধরা গ্রুপের মালিক অসহায় মানুষকে সাহায্য-সহযোগিতা করেন। আমার এলাকার প্রত্যন্ত চরে বসু্ন্ধরা কর্তৃপক্ষ ত্রাণ পাঠিয়েছে, বিষয়টি খুবই ভালো লাগছে। ’ বসুন্ধরা গ্রুপের মালিকের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন এই জনপ্রতিনিধি।

সংশ্লিষ্টরা জানান, ব্রহ্মপুত্র নদের অববাহিকায় ভারতীয় সীমান্ত লাগোয়া অনেক বন্যাকবলিত এলাকায় বসুন্ধরা গ্রুপের বিতরণ করা খাদ্যসামগ্রীর মধ্যে ছিল চাল, ডাল, তেল, মুড়ি ও বিশুদ্ধ পানি।  

ত্রাণ সরবরাহ কার্যক্রমে উপস্থিত ছিলেন বসুন্ধরা ফুড অ্যান্ড বেভারেজের প্রডাক্ট লাইন-বি-এর এজিএম মওদুদ আহমেদ (নর্থ বেঙ্গল), প্রডাক্ট লাইন-বি-এর ডিএসএম আবুল বাশার (রংপুর বিভাগ), প্রডাক্ট লাইন-বি-এর ডিএসএম আতাউর রহমান (ময়মনসিংহ), প্রডাক্ট লাইন-বি-এর ডিএসএম দীপঙ্কর রায়সহ (সিলেট) স্থানীয় ডিস্ট্রিবিউটর, ইউপি সদস্যসহ স্থানীয় ব্যক্তিরা।

 



সাতদিনের সেরা