kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০২২ । ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ । ১৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ভারতে ধর্মীয় কটূক্তি

বাগেরহাটে সংখ্যালঘুর বাড়িতে হামলা ভাঙচুর আগুন

বাগেরহাট ও চিতলমারী প্রতিনিধি   

১৩ জুন, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভারতে ধর্মীয় কটূক্তি করা নিয়ে বাগেরহাটের চিতলমারীতে তর্ক-বিতর্কের জেরে এক সংখ্যালঘু পরিবারের বাড়িতে হামলা, ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে। গতকাল রবিবার দুপুর ২টার দিকে মিছিল নিয়ে বিক্ষুব্ধ লোকজন চিংগরি গ্রামের একটি বাড়িতে ওই হামলা চালায়। তখন বাড়ির লোকজন পালিয়ে অন্যত্র আশ্রয় নেয়।

হামলাকারীরা কুনিয়া এলাকার সড়কে আগুন জ্বেলে অবরোধ করে।

বিজ্ঞাপন

খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে ওই সংখ্যালঘু পরিবারের এক যুবকে আটক করে পরিস্থিতি শান্ত করে। আটক ওই যুবক (৩৩) পাশের একটি এলাকায় সেলুন চালান।

এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বাগেরহাটের পুলিশ সুপার কে এম আরিফুল হক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

পুলিশ সুপার কে এম আরিফুল হক জানান, এক সপ্তাহ আগে স্থানীয় বাজারের একটি চায়ের দোকানে ভারতে ধর্মীয় কটূক্তির বিষয়ে ওই যুবকের সঙ্গে কয়েকজনের কথা-কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে তাঁরা তর্ক-বিতর্কে জড়িয়ে পড়েন।

পুলিশ সুপার আরো জানান, ভারতের ওই বিষয়ের প্রতিবাদে রবিবার গোপালগঞ্জে মানববন্ধন করে মুসল্লিরা। চিতলমারী থেকে বেশ কিছু মুসল্লি এতে অংশ নেয়। সেখান থেকে ফেরার পথে কিছু বিক্ষুব্ধ লোকজন ওই বাড়িতে হামলা চালায়।

ওই বাড়ির পাশের বাড়ির এক ব্যক্তি জানান, শতাধিক লোকজন একযোগে এসে ওই বাড়িতে হামলা এবং ভাঙচুর চালায়। এক পর্যায়ে তারা ওই বাড়ির একাংশে আগুন ধরিয়ে দেয়। তখন ওই বাড়ির লোকজন কৌশলে পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে প্রতিবেশীরা এসে আগুন নেভায়।

 



সাতদিনের সেরা