kalerkantho

শনিবার । ২৫ জুন ২০২২ । ১১ আষাঢ় ১৪২৯ । ২৪ জিলকদ ১৪৪৩

গোয়েন্দা পরিচয়ে তৈমূরের কাছে টাকা দাবি, গ্রেপ্তার ১

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি   

৫ জানুয়ারি, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারের কাছে পাঁচ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করার অভিযোগে পুলিশ একজনকে গ্রেপ্তার করেছে। গোয়েন্দা সংস্থার লোক পরিচয় দিয়ে তৈমূরের মোবাইলে দুই দফায় ফোন দিয়ে ওই টাকা চাওয়া হয়। গ্রেপ্তার ব্যক্তির নাম চিত্তরঞ্জন দাস ওরফে মো. সুমন মিয়া (৩৮)। তিনি নওমুসলিম।

বিজ্ঞাপন

চিত্তরঞ্জন দাস ওরফে সুমন মিয়া কুমিল্লার হোমনা থানার রামকৃষ্ণপুর গ্রামের মৃত রগুন চন্দ্র দাসের ছেলে। ১২ বছর আগে তিনি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেন। এর আগে তিনি নিজ এলাকায় সেলুনে কাজ করতেন। পরে ঢাকায় এসে গার্মেন্ট থেকে ঝুট নামানোর কাজ করার পাশাপাশি প্রতারণার কাজেও জড়িত হয়ে পড়েন। গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে পুলিশ সুপার কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসপি মোহাম্মদ জায়েদুল আলম জানান, মো. সুমনকে ঢাকার উত্তর আদাবর বড়বাড়ী থেকে সোমবার রাতে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ডিজিএফআইয়ের লোক পরিচয় দিয়ে মূলত অর্থ হাতানোর জন্যই এ কাজ করেছেন তিনি। ঘটনার সঙ্গে জড়িত আরো দুজনকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে বলে তিনি জানান। পুলিশ সুপার বলেন, গত ২২ ডিসেম্বর প্রথম ডিজিএফআইয়ের লোক পরিচয় দিয়ে ০১৬১৮৭৪৪১১১ নম্বর থেকে টাকা দাবি করেন সুমন।



সাতদিনের সেরা