kalerkantho

শনিবার ।  ২১ মে ২০২২ । ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩  

রাসেলই সেদিন গাড়ি চালাচ্ছিলেন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১ ডিসেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



রাজধানীর গুলিস্তানে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) ময়লার গাড়ির ধাক্কায় নটর ডেম কলেজের শিক্ষার্থী নাঈম হাসানের মৃত্যুর ঘটনায় ওই গাড়ির মূল চালক হারুন মিয়া ওরফে কাইল্লা হারুন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। গতকাল মঙ্গলবার ঢাকা মহানগর হাকিম শহিদুল ইসলামের আদালত জবানবন্দি রেকর্ড করেন। রাজধানীর পল্টন থানার মামলায় এই জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়।

এদিন রিমান্ড শেষে আদালতে হাজির করা হলে স্বেচ্ছায় জবানবন্দি দেন হারুন।

বিজ্ঞাপন

জবানবন্দিতে তিনি বলেন, ঘটনার দিন পরিচ্ছন্নতাকর্মী রাসেল গাড়ি চালাচ্ছিলেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপপরিদর্শক আনিছুর রহমান ফৌজদারি কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি রেকর্ড করার আবেদন করেন। আদালত জবানবন্দি রেকর্ড করে আসামিকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। এর আগে গত ২৬ নভেম্বর রাজধানীর যাত্রাবাড়ী থেকে হারুনকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। পরদিন তাঁর দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। এদিকে সোমবার পরিচ্ছন্নতাকর্মী রাসেল খানও আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

গত ২৪ নভেম্বর সকালে গুলিস্তানে নাঈম হাসানকে (১৮) সিটি করপোরেশনের একটি ট্রাক ধাক্কা দেয়। এরপর নাঈমকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে (ঢামেক) নেওয়া হলে মারা যান নাঈম।



সাতদিনের সেরা