kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৩০ জুন ২০২২ । ১৬ আষাঢ় ১৪২৯ । ২৯ জিলকদ ১৪৪৩

পরিবারের খরচ একাই বহন করতেন কবির

ঝালকাঠি প্রতিনিধি   

২৮ নভেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



পরিবারের খরচ একাই বহন করতেন কবির

আহসান কবীর খান

গ্রামের বাড়িতে মা-বাবা ও ঢাকায় স্ত্রী-সন্তানদের খরচ একাই বহন করতেন সংবাদকর্মী আহসান কবির খান। ঢাকা উত্তর সিটি করপো-রেশনের (ডিএনসিসি) ময়লার গাড়ির চাপায় তাঁর মৃত্যুতে দিশাহারা তাঁর পরিবার। পত্রিকায় চাকরি ও গার্মেন্টে মালামাল সরবরাহের টাকা দিয়েই চলত কবিরের সংসার। ঢাকায় একটি ফ্ল্যাট থাকলেও নগদ কোনো অর্থ রেখে যেতে পারেননি বলে জানান কবিরের স্ত্রী নাদিরা পারভীন রেখা।

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন, ছেলেকে বুয়েটে পড়ানো ও মেয়েকে ডাক্তার বানানোর স্বপ্ন অধরাই থেকে গেল কবীরের।

ঝালকাঠি শহর থেকে ১০ কিলোমিটার দূরে শেখেরহাট ইউনিয়নের শিরজুগ গ্রাম। মূল সড়ক থেকে একটু ভেতরেই আহসান কবিরের বাড়ি। বাড়ির সামনেই পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয় তাঁর লাশ। গতকাল শনিবার দুপুরে তাঁর বাড়ি গিয়ে দেখা যায়, বাবা আবদুল মান্নান খান, মা আমেনা বেগম, স্ত্রী নাদিরা, ছেলে সাদমান শাহরিয়ার কাইফ ও মেয়ে সাফরিন কবির দিয়া বসে বিলাপ করছেন। তাঁদের কথায় উঠে আসছে কবিরের বিভিন্ন স্মৃতি।



সাতদিনের সেরা