kalerkantho

বুধবার । ১২ মাঘ ১৪২৮। ২৬ জানুয়ারি ২০২২। ২২ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

মহেশখালীতে মাটি খুঁড়ে ১০ অস্ত্র উদ্ধার, আটক ৩

বিশেষ প্রতিনিধি, কক্সবাজার   

২৪ নভেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মহেশখালীতে মাটি খুঁড়ে ১০ অস্ত্র উদ্ধার, আটক ৩

মহেশখালীর পাহাড় থেকে উদ্ধার করা অস্ত্র। ছবি : কালের কণ্ঠ

কক্সবাজারের মহেশখালী উপজেলার পাহাড়ি এলাকা থেকে মাটিতে পুঁতে রাখা ১০ অস্ত্রসহ তিন সন্ত্রাসীকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। গতকাল মঙ্গলবার ভোরে কালারমারছড়া ইউনিয়নের ছামিরাঘোনা পাহাড়ে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়।

গ্রেপ্তাররা হলেন মহেশখালীর ছামিরাঘোনা এলাকার রফিকুল ইসলাম মামুন (২৮), একই ইউনিয়নের চিকনীপাড়ার মনিরুল আলমের ছেলে মোহাম্মদ রিফাত (২৩) ও আয়ুব আলী (৪০)। তাঁরা আলাউদ্দিন হত্যা মামলার আসামি।

বিজ্ঞাপন

কক্সবাজার র‌্যাব-১৫-এর সিপিসি কমান্ডার মেজর শেখ ইউসূফ আহমেদ জানান, গত ৫ নভেম্বর মহেশখালীর কালারমারছড়ায় আত্মসমর্পণ করা জলদস্যু আলাউদ্দিনকে হত্যা করা হয়। এ ঘটনায় তাঁর ভাই ১৮ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা করেন। মামলার পর ছায়াতদন্তে নামে র‌্যাব। তদন্তে গিয়ে গত সোমবার বান্দরবানের লামার ফাইতং থেকে হত্যাকাণ্ডের প্রধান আসামি রফিকুল ইসলাম মামুন ও তাঁর সহযোগী রিফাতকে আটক করা হয়। তাঁদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে মামলার আসামি আয়ুব আলীকে কক্সবাজার শহরের পাহাড়তলী এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে তাঁদের কথামতো অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

র‌্যাব-১৫-এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল খায়রুল ইসলাম সরকার জানান, গ্রেপ্তার সন্ত্রাসীদের জিজ্ঞাসাবাদের পর কালারমারছড়ার ছামিরা ঘোনাপাড়ের মাটি খুঁড়ে ছয়টি বন্দুক, তিনটি এলজি, একটি বিদেশি পিস্তল, একটি ম্যাগাজিন, দুই রাউন্ড তাজা গুলি ও পাঁচ রাউন্ড তাজা কার্তুজ উদ্ধার করেন র‌্যাবের সদস্যরা।



সাতদিনের সেরা