kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ২ ডিসেম্বর ২০২১। ২৬ রবিউস সানি ১৪৪৩

শেষ হলো বঙ্গবন্ধু ইনোভেশন গ্র্যান্ট

বিজয়ী পেল ১ লাখ ডলারের অনুদান

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৩১ অক্টোবর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শেষ হলো বঙ্গবন্ধু ইনোভেশন গ্র্যান্ট

বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের মাল্টিপারপাস অডিটরিয়ামে গতকাল অনুষ্ঠিত গ্র্যান্ড ফিনালেতে সেরাদের সেরা হয়েছে ‘ওপেনরিফ্যাক্টরি’। পুরস্কার হিসেবে তারা পেয়েছে এক লাখ মার্কিন ডলার। ছবি : কালের কণ্ঠ

স্টার্টআপদের অনুপ্রাণিত করার বড় আয়োজন ‘বঙ্গবন্ধু ইনোভেশন গ্র্যান্ট (বিগ) ২০২১’-এর পর্দা নামল শনিবার। বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের মাল্টিপারপাস অডিটরিয়ামে অনুষ্ঠিত এই বিশেষ আয়োজনের গ্র্যান্ড ফিনালেতে সেরাদের সেরা হিসেবে ঘোষণা করা হয় ‘ওপেনরিফ্যাক্টরি’-এর নাম। পুরস্কারস্বরূপ এই স্টার্টআপ পেয়েছে এক লাখ মার্কিন ডলারের অনুদান। এ ছাড়া দেশীয় স্টার্টআপদের নিয়ে অনুষ্ঠিত রিয়ালিটি শো থেকে নির্বাচিত ২৬টি এবং আন্তর্জাতিক পর্যায়ের সেরা ১০টি স্টার্টআপ অর্থাৎ দেশি-বিদেশি নির্বাচিত মোট ৩৬টি স্টার্টআপের প্রত্যেকেই পাচ্ছে ১০ লাখ টাকা করে মোট তিন কোটি ৬০ লাখ টাকার অনুদান।

আন্তর্জাতিক এই আয়োজনে ১৪২টি দেশে ক্যাম্পেইন শেষে বাংলাদেশসহ বিশ্বের ৫৭টি দেশ থেকে প্রাথমিক পর্যায়ে সাত হাজারের বেশি স্টার্টআপ ও উদ্ভাবক এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণের জন্য আবেদন করে। এর আয়োজনে ছিল তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের আওতায় বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের অধীনে ‘উদ্ভাবন ও উদ্যোক্তা উন্নয়ন একাডেমি প্রতিষ্ঠাকরণ প্রকল্প’।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল এবং সভাপতিত্ব করেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহেমদ পলক।

অনলাইনে যুক্ত হয়ে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেন, ‘তরুণ উদ্ভাবকদের সহায়তায় চলতি বাজেটে সরকার ১০০ কোটি টাকা বরাদ্দ রেখেছে। বর্তমানে বাংলাদেশে দুই হাজার ৫০০টির বেশি স্টার্টআপ কাজ করছে এবং আমাদের অর্থনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে। দেশে বর্তমানে ৪০টিরও বেশি অ্যাকসেলারেটর এবং ইনকিউবেটর প্রগ্রাম তাদের বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে। এরই মধ্যে বেশ কিছু স্টার্টআপ প্রতিষ্ঠান দেশে প্রচুর বিনিয়োগ নিয়ে এসেছে, যা আমাদের জন্য গর্বের বিষয়।’

প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহেমদ পলক বলেন, ‘ইনোভেশন ইকোসিস্টেম গড়ে তোলার মাধ্যমে উদ্ভাবনী জাতি গঠন করার লক্ষ্যে অল্পদিনের মধ্যেই একটি স্টার্টআপ পলিসি প্রণয়ন করা হবে। বর্তমানে আইসিটি খাতের রপ্তানি আয় এক বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বেশি। আগামী ২০২৫ সালের মধ্যে এ খাতে রপ্তানি আয় পাঁচ বিলিয়ন ডলারে উন্নীত করা এবং ৩০ লাখ লোকের কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে কাজ করছি।’ অনুষ্ঠানে বিশেষ আকর্ষণ হিসেবে ছিল সম্প্রতি লন্ডনের বিখ্যাত অ্যাবি রোড স্টুডিওতে ধারণকৃত আনুষ্কা শঙ্করের বিশেষ পরিবেশনা।



সাতদিনের সেরা