kalerkantho

মঙ্গলবার । ১১ মাঘ ১৪২৮। ২৫ জানুয়ারি ২০২২। ২১ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

দাওয়াই

সর্দি, কাশি, মাথা ব্যথা হলে

২৮ অক্টোবর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সর্দি, কাশি, মাথা ব্যথা হলে

সর্দি, কাশি, মাথা ব্যথা সারা বছরের রোগ। ওষুধপথ্য ছাড়াও কিছু ঘরোয়া দাওয়াই প্রয়োগ করলে এসব ক্ষেত্রে বেশ উপকার মেলে। নিচে এমন কিছু ঘরোয়া দাওয়াই সম্পর্কে পরামর্শ দেওয়া হলো :  

♦        অল্প পরিমাণ সরিষার তেলে আধা চা চামচ কালিজিরা হাতের তালুতে মিশিয়ে বা রগড়ে নিন। এবার সেটা ছেঁকে নিয়ে হাতের আঙুলে করে শিশুর নাকের দুই পাশে মালিশ করুন।

বিজ্ঞাপন

রাতে শিশুদের শ্বাস বন্ধ হওয়ার সমস্যায় এটা বেশ কার্যকর পদ্ধতি।

♦        এক গ্লাস গরম পানিতে এক চিমটি হলুদের গুঁড়া মেশান। এটি দিয়ে প্রতিদিন গারগল বা কুলকুচি করুন। এ ছাড়া এক গ্লাস দুধে আধা চা চামচ হলুদের গুঁড়া মিশিয়ে ফুটিয়ে নিন। সম্ভব হলে এর সঙ্গে দুই চা চামচ মধু ও এক চিমটি গোলমরিচের গুঁড়া মিশিয়ে এই দুধ দিনে দু-তিনবার পান করুন।

♦        একটি পাত্রে কিছু পানি ফুটিয়ে নিন। পানি এমনভাবে ফুটাবেন যাতে বাষ্প নির্গত হয়। এবার সেই ফুটন্ত পানিতে এক চামচ হলুদ ও এক চিমটি কর্পূর মিশিয়ে সেই ধোঁয়া বা বাষ্প নাক দিয়ে টানুন বা ইনহেল করুন। এটা কয়েকবার করলে মাথা ব্যথায় উপকার মিলবে।

♦        আদা কুচি কুচি করে এক টেবিল চামচ পানিতে মেশান। এবার এটি ঢাকনা দিয়ে ঢেকে ৫ থেকে ১০ মিনিট ফুটিয়ে ঠাণ্ডা করে সামান্য মধু মেশান। দিনে তিন-চারবার এই পানীয় পান করুন। এর সঙ্গে এক চা চামচ আদা কুচি, গোলমরিচের গুঁড়া ও লবঙ্গের গুঁড়া দুধ বা মধুর সঙ্গে মিশিয়ে মিশ্রণটি দিনে তিনবার পান করুন। চাইলে এক টুকরা আদা নিয়ে মুখে চিবাতে পারেন। আদার রস বুকের কফ বা শ্লেষ্মা শরীর থেকে বের করে দিতে সাহায্য করবে।

♦        এক গ্লাস সামান্য উষ্ণ পানির সঙ্গে এক চা চামচ লবণ মিশিয়ে এই পানীয় দিনে দু-তিনবার গারগল করুন। সর্দি, কফ দূর করতে এটি বেশ কার্যকর।

♦        পরিমাণমতো মধু, পেঁয়াজ, পানি, লেবুর রস মিশিয়ে পাঁচ থেকে সাত মিনিট ফুটিয়ে নিন। এভাবে সামান্য উষ্ণ এই পানি দিনে অন্তত তিন-চারবার পান করলে সর্দি-কাশিতে উপকার পাবেন।

গ্রন্থনা : আতাউর রহমান কাবুল



সাতদিনের সেরা