kalerkantho

বুধবার । ১১ কার্তিক ১৪২৮। ২৭ অক্টোবর ২০২১। ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

গরম তেল ঢেলে স্ত্রীকে হত্যা!

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৪ অক্টোবর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রাজধানীর আশুলিয়ায় যৌতুক না দেওয়ায় স্ত্রী স্বর্ণা বেগমের (৩৫) শরীরে গরম তেল ঢেলে হত্যা করেছেন স্বামী সজনু মিয়া (৩৮)। গতকাল বুধবার দুপুরে রাজধানীর মালিবাগ সিআইডি সদর দপ্তরে এক সংবাদ সম্মেলনে সিআইডির বিশেষ পুলিশ সুপার মুক্তা ধর এ তথ্য জানান।

মুক্তা ধর জানান, ২৫ সেপ্টেম্বর রাতে আশুলিয়ার জিরানীর টেগুরী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। শরীরের প্রায় ৫২ শতাংশ পুড়ে যাওয়া স্বর্ণাকে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়। ১২ দিন চিকিৎসাধীন থাকার পর গত ৬ অক্টোবর ভোরে তিনি মারা যান। এ ঘটনায় গত ১ অক্টোবর সজনুর বিরুদ্ধে আশুলিয়া থানায় নারী ও শিশু নির্যাতনের অভিযোগ এনে ভুক্তভোগীর মা মামলা করেন। ঘটনার পর আসামি একেক সময় একেক জায়গায় অবস্থান করছিলেন। তবে মঙ্গলবার রাতে এলআইসির (লফুল ইন্টারসেপশন সেল) একটি দল সজনুকে কেরানীগঞ্জ থেকে গ্রেপ্তার করে।

তিনি আরো জানান, স্বর্ণার সঙ্গে ২০০৭ সালে বিয়ে হয় সজনুর। পরে তাঁরা জামালপুরে সজনুর গ্রামের বাড়িতে থাকতেন। স্বামীর পরকীয়া প্রেম এবং সংসারের খরচ না দেওয়া নিয়ে তাঁদের মধ্যে প্রায়ই কলহ হতো। তা ছাড়া যৌতুকের দাবিতে স্বর্ণার ওপর নির্যাতন চালাতেন সজনু। নির্যাতনে অতিষ্ঠ হয়ে প্রায় ছয় মাসে আগে সন্তানসহ বাবার বাড়ি আশুলিয়ার জিরানী এলাকায় চলে আসেন স্বর্ণা। সেখানে তিনি একটি পোশাক কারখানায় চাকরি নেন। সজনু গত ২৪ সেপ্টেম্বর স্বর্ণার বাড়ি যান এবং যৌতুকের টাকা দাবি করেন। এ টাকা দিতে অসম্মতি জানালে রাতে ঘুমন্ত অবস্থায় স্বর্ণার শরীরে তেল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেন সজনু। জিজ্ঞাসাবাদে সজনু দোষ স্বীকার করেছেন বলে জানিয়েছেন মুক্তা ধর।



সাতদিনের সেরা