kalerkantho

বুধবার । ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ৮ ডিসেম্বর ২০২১। ৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

আরো ২৫২০ টন ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

২৪ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দুর্গাপূজা উপলক্ষে ভারতে দুই হাজার ৮০ মেট্রিক টন ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন দেওয়ার দুই দিন পর গতকাল বৃহস্পতিবার আরো দুই হাজার ৫২০ মেট্রিক টন রপ্তানির অনুমোদন দিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের উপসচিব তানিয়া ইসলাম স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে নতুন করে ৬৩টি প্রতিষ্ঠানকে ভারতে ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

জানা গেছে, গত সোমবার ৫২টি প্রতিষ্ঠানকে ৪০ মেট্রিক টন করে মোট দুই হাজার ৮০ মেট্রিক টন ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন দেয় বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। ভারতে ইলিশ রপ্তানিতে আগ্রহী ব্যবসায়ীদের আবেদনের তালিকা দীর্ঘ হওয়ায় বাণিজ্য মন্ত্রণালয় বৃহস্পতিবার আরো ৬৩টি প্রতিষ্ঠানকে দুই হাজার ৫২০ মেট্রিক টন ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন দেয়।

একাধিক রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের মালিক নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে যাঁদের ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন দেওয়া হয়েছে তাঁদের অনেকেই প্রকৃত মাছ রপ্তানিকারক নন। তা ছাড়া মন্ত্রণালয় নির্ধারিত ৩ অক্টোবরের মধ্যে এসব ইলিশ রপ্তানির জন্য সময়সীমা বেঁধে দেওয়া হয়েছে। এই অল্প সময়ে বেশির ভাগ রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠান অনুমোদিত ইলিশ রপ্তানি করতে পারবে না।

কারণ হিসেবে ব্যবসায়ীরা জানান, বাংলাদেশ সরকার অনুমোদন দিতে এরই মধ্যে দেরি করেছে। এরপর ভারতের আমদানিকারকদের তাদের সরকারের অনুমোদন পেতে আরো ৭ থেকে ১০ দিন সময় লেগে যাবে। এ ছাড়া বর্তমানে ভারতের বাজারে ইলিশের দাম বাংলাদেশের চেয়ে কম। তাই বাংলাদেশি রপ্তানিকারকরা ভারতে ইলিশ রপ্তানি করে সুবিধা পাবেন না।

রপ্তানিকারকরা কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘৩ অক্টোবরের মধ্যে চার হাজার ৬০০ মেট্রিক টন ইলিশ রপ্তানির জন্য যে সময়সীমা বেঁধে দেওয়া হয়েছে তা বাড়িয়ে ১৪ অক্টোবর করার জন্য আমরা বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে চিঠি দিয়েছি।’



সাতদিনের সেরা