kalerkantho

মঙ্গলবার । ১১ মাঘ ১৪২৮। ২৫ জানুয়ারি ২০২২। ২১ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

নিপীড়ন প্রতিরোধে শুভসংঘের সাইবার বুলিং কর্মশালা

গাইবান্ধা প্রতিনিধি   

২১ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



নিপীড়ন প্রতিরোধে শুভসংঘের সাইবার বুলিং কর্মশালা

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে কালের কণ্ঠ শুভসংঘের আয়োজনে ‘সাইবার নিপীড়ন প্রতিরোধে সাইবার বুলিং কর্মশালা’ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সোমবার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা পরিষদ হলরুমে আয়োজিত এ কর্মশালায় স্থানীয় বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রায় তিন শ শিক্ষার্থী অংশ নেয়।

এতে প্রধান অতিথি ছিলেন গাইবান্ধার পুলিশ সুপার তৌহিদুল ইসলাম। উপজেলা শুভসংঘের সভাপতি তাহমিদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মো. আবদুল লতিফ প্রধান, গোবিন্দগঞ্জ পৌর মেয়র মো. মুকিতুর রহমান রাফি, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আবু সাইদ, বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক তাবিউর রহমান প্রধান, গোবিন্দগঞ্জ থানার ওসি এ কে এম মেহেদি হাসান, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব বাবুলাল চৌধুরী, শুভসংঘের জেলা সভাপতি তৌহিদা মাহমুদ, সাধারণ সম্পাদক লতা সরকার, উপজেলা সম্পাদক মো. হুমায়ুন আহমেদ বিপ্লব ও কালের কণ্ঠ’র জেলা প্রতিনিধি অমিতাভ দাশ হিমুন।

বিজ্ঞাপন

অনুষ্ঠানের শুরুতে মহান মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধুকে শ্রদ্ধা জানিয়ে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করেন ‘চিন্তক’ সাংস্কৃতিক প্রতিষ্ঠানের শিল্পীরা।  

রিসোর্স পারসন হিসেবে কর্মশালা পরিচালনা করেন সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার উদয় কুমার সাহা। এ সময় প্রজেক্টরের মাধ্যমে পর্দায় সাইবার বুলিংয়ের কুফল ও তথ্যসমৃদ্ধ ভিডিও চিত্র তুলে ধরা হয়। উদয় কুমার সাহা বলেন, শিক্ষাজীবন রক্ষা ও মানসিক নিপীড়ন থেকে রক্ষা পেতে সবাইকে ইন্টারনেট ব্যবহারের অপপ্রয়োগ থেকে সরে আসতে হবে।

বিশেষ অতিথি মো. আবু সাঈদ বলেন, প্রযুক্তি ব্যবহারে সতর্ক না হলে ব্যবহারকারীর জীবন দুর্বিষহ হয়ে উঠতে পারে। তিনি শিক্ষার্থীদের সাইবার বুলিং সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পড়াশোনার ওপর গুরুত্ব দেন।

অধ্যাপক তাবিউর রহমান প্রধান বলেন, স্কুল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ে অন্তর্জাল শিক্ষা গ্রহণের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ হলেও অনেক ক্ষেত্রে তা নানা অনভিপ্রেত ঘটনার দিকে মোড় নিচ্ছে।

প্রধান অতিথি পুলিশ সুপার মুহাম্মদ তৌহিদুল ইসলাম বলেন, শুভসংঘের এই আয়োজনে বিপুলসংখ্যক শিক্ষার্থীর অংশগ্রহণ তাঁকে মুগ্ধ করেছে। সাইবার অপরাধ দমনে পুলিশের ভূমিকাকে বেগবান করতে সর্বস্তরের মানুষের সহযোগিতা কামনা করেন তিনি।

তিন ঘণ্টার এই প্রাণবন্ত অনুষ্ঠানের শেষ প্রান্তে সাইবার বুলিং সম্পর্কিত কুইজ প্রতিযোগিতায় পাঁচ বিজয়ীর হাতে পুরস্কার তুলে দেন প্রধান অতিথিসহ অন্যরা। বিজয়ীরা হলেন মুস্তারিণ সিদ্দিকা মুমুু, আনতার লাবিবা, কোহিনূর আক্তার কণা, জান্নাতুল ফিরদৌস ও মো. আবিদ হাসান। গোবিন্দগঞ্জ সরকারি কলেজ, বিএম বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, গোবিন্দগঞ্জ মহিলা কলেজ, গোবিন্দগঞ্জ সরকারি হাই স্কুলের শিক্ষার্থীরা কর্মশালা ও প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়।



সাতদিনের সেরা