kalerkantho

শনিবার । ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ২৭ নভেম্বর ২০২১। ২১ রবিউস সানি ১৪৪৩

রফিউর রাব্বির বিরুদ্ধে ডিজিটাল আইনে মামলার আবেদন

পদক্ষেপ নিতে থানাকে আদালতের নির্দেশ

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি   

২ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রাষ্ট্র ও সরকারের মন্ত্রীদের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করার অভিযোগ এনে তেল-গ্যাস-বন্দর ও জাতীয় সম্পদ রক্ষা কমিটির জেলা আহ্বায়ক এবং নিহত ত্বকীর বাবা রফিউর রাব্বির বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার আবেদন জানানো হয়েছে। জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট মহসিন মিয়া গত মঙ্গলবার নারায়ণগঞ্জ চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে (ক-অঞ্চল) এই আবেদন করেছেন।

মামলার আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আহমেদ হুমায়ন কবীর বিষয়টি প্রাথমিক তদন্তে সঠিক হলে সেটিকে মামলা হিসেবে রুজু করতে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানা পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছেন।

সম্প্রতি নারায়ণগঞ্জে শীতলক্ষ্যা সেতুসহ দুটি মহাসড়কের নামকরণ নিয়ে রফিউর রাব্বি বলেন, ‘অর্থের বিনিময়ে মন্ত্রী-আমলারা এসব স্থাপনার নামকরণ করেছেন।’ মামলার বাদী মহসিন মিয়ার দাবি, রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে এসব স্থাপনার নামকরণ হয়েছে। রফিউর রাব্বির এমন মন্তব্য প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে রাষ্ট্রপতি তথা রাষ্ট্রের বিরোধিতা করার শামিল।

আদালত সূত্র জানায়, অ্যাডভোকেট মহসিন মিয়ার মামলার আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক নির্দেশনায় লিখেছেন, ‘আনীত অভিযোগসমূহ ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২৫, ২৯ ও ৩১ ধারায় আমলযোগ্য, যা সত্যতা নির্ণয়ের দাবি রাখে। এমতাবস্থায় অভিযোগসমূহ প্রাথমিক অনুসন্ধানের মাধ্যমে সঠিক মর্মে প্রতীয়মান হলে এফআইআর হিসেবে রুজু করার জন্য নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার ওসিকে নির্দেশ দেওয়া গেল।’

আবেদনকারী মহসিন মিয়া এ ব্যাপারে জানান, যে তিনজনের নামে শীতলক্ষ্যা সেতু ও দুটি মহাসড়কের নামকরণ করা হয়েছে তাঁরা সবাই প্রয়াত। তাঁদের মধ্যে দুজন ভাষাসৈনিক, একজন স্বাধীনতাযুদ্ধের সংগঠক এবং অন্যজন একাধিকবারের নির্বাচিত এমপি ও বীর মুক্তিযোদ্ধা। তা ছাড়া এত বিশাল পরিধির স্থাপনা নামকরণের নেপথ্যে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর সদিচ্ছা ছিল বলেই হয়েছে। সেখানে বিবাদী রফিউর রাব্বির এমন বক্তব্য রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী তথা রাষ্ট্রের বিরোধিতা ও অবমাননার শামিল।



সাতদিনের সেরা