kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৫ কার্তিক ১৪২৮। ২১ অক্টোবর ২০২১। ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

করোনার টিকা নিয়ে ফেরা হলো না দুই ভাইয়ের

পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল শ্যালিকা-দুলাভাইসহ সাতজনের

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



করোনার টিকা নিয়ে ফেরা হলো না দুই ভাইয়ের

ছুটি শেষে আবার সৌদি আরবে যাবেন তিনি। তাই করোনাভাইরাস প্রতিরোধী টিকা নিতে ঝিনাইদহের শৈলকুপা থেকে এসেছিলেন ঢাকায়। সঙ্গে ছিলেন ছোট ভাই। টিকা নিয়ে আর বাড়ি ফেরা হলো না মোটরসাইকেল আরোহী এই দুই ভাইয়ের। গতকাল বুধবার সকালে ঢাকার ধামরাইয়ের বাথুলি বাসস্ট্যান্ডে ট্রাকচাপায় নিহত হয়েছেন তাঁরা।

এদিকে বগুড়ার শাজাহানপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত দুলাভাই ও শ্যালিকার মৃত্যু হয়েছে। এ ছাড়া চার জেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেছে শিশুসহ পাঁচজনের।

ধামরাইয়ে নিহতরা হলেন শৈলকুপার উত্তর মির্জাপুর গ্রামের মৃত আবুল কালাম আজাদের ছেলে নাছির উদ্দিন জোয়ার্দার (৪৫) ও নাফিস উদ্দিন জোয়ার্দার (৩০)। নাছির ২০ বছরেরও বেশি সময় সৌদিপ্রবাসী ব্যবসায়ী ও নাফিস ভারতের দিল্লির একটি ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ থেকে সদ্য এমবিএ শেষ করেছিলেন।

শাজাহানপুরে গত ২৩ আগস্ট সন্ধ্যার ঘটনায় নিহতরা হলেন উপজেলার দারিকামাড়িপাড়া গ্রামের আবু বকর সিদ্দিকের মেয়ে জান্নাতী ফেরদৌস মাওয়া (১৩) ও জামাই ধুনট উপজেলার ঢেকুরিয়া গ্রামের গোলাম হোসেনের ছেলে বিপুল হোসেন ওরফে রিপন (৩৫)। স্বজনরা জানায়, ফুফাতো বোনের বিয়েতে যাওয়ার জন্য মাওয়া দুলাভাই বিপুলের সঙ্গে বগুড়ায় কেনাকাটা শেষে অটোটেম্পোতে বাড়ি ফিরছিল। পথে সাজাপুর রাধারঘাট এলাকায় ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কে দ্রুতগামী ট্রাক পেছন থেকে অটোটেম্পোটিকে ধাক্কা মারে।

রংপুরের বদরগঞ্জ উপজেলার বাজার থেকে গতকাল দুপুরে মায়ের সঙ্গে বাড়ি ফেরার পথে অটোচার্জার গাড়ির ধাক্কায় রিকশা ভ্যান থেকে ছিটকে পড়ে জেবামনি (৫) নামের এক শিশুর মৃত্যু হয়। পৌর শহরের বটপাড়া এলাকায় বদরগঞ্জ-নাগেরহাট সড়কে দুর্ঘটনাটি ঘটে।

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার মিরশ্বানী ও মিয়াবাজার এলাকায় মঙ্গলবার রাতে এবং গতকাল দুপুরে দুটি সড়ক দুর্ঘটনায় দুজন নিহত হন। রাতে মিরশ্বানীর ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে বেপরোয়া গতির একটি কাভার্ড ভ্যান আরেকটি কাভার্ড ভ্যানকে পেছন থেকে ধাক্কা দিলে গাড়িটি সড়কের পাশে পড়ে যায়। এ সময় চালকের আসনে থাকা ভ্যানটির হেলপার মো. আনিস (২২) বাঁচার জন্য গাড়ি থেকে ঝাঁপ দিয়ে সড়কে পড়লে পেছন থেকে একটি গাড়ি এসে তাঁকে চাপা দেয়। আনিস ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার রামপুরের ছিদ্দিকুর রহমানের ছেলে। অন্যদিকে মিয়াবাজার এলাকায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে একটি পিকআপ ভ্যান ব্যাটারিচালিত রিকশাকে ধাক্কা দিলে রিকশাটির চালক কামাল হোসেনের (৪৮) মৃত্যু হয়। কামাল কুমিল্লার সদর দক্ষিণ উপজেলার রাজেশপুরের মৃত আব্দুর রশিদের ছেলে।

ময়মনসিংহের ভালুকার বান্দিয়া এলাকায় গতকাল বিকেলে একটি ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের পাশে পড়ে হেলপার সজীব (২০) নিহত ও চালক আহত হন। সজীব শেরপুরের ভাগরহাটি এলাকার বিষু মিয়ার ছেলে।

[প্রত্যক্ষদর্শী, থানা-পুলিশ ও হাসপাতাল সূত্রে প্রতিবেদনে তথ্য দিয়েছেন সংশ্লিষ্ট এলাকার কালের কণ্ঠ’র নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিরা]



সাতদিনের সেরা