kalerkantho

শনিবার ।  ২১ মে ২০২২ । ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩  

দিনাজপুরে কাঁচা মরিচের কেজি ২০০ টাকা

দিনাজপুর প্রতিনিধি   

৭ আগস্ট, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দিনাজপুরে কাঁচা মরিচের কেজি ২০০ টাকা

বাজারে এসেছে মৌসুমি সবজি বইকচু। পাইকারি প্রতি মণ বিক্রি হচ্ছে ৩০০ থেকে ৩৫০ টাকায়। গতকাল বগুড়ার মহাস্থান সবজি বাজারে। ছবি : কালের কণ্ঠ

দিনাজপুরের বাজারে এক সপ্তাহের ব্যবধানে কাঁচা মরিচের দাম চার গুণ বেড়ে ২০০ টাকা কেজি হয়েছে। গত সপ্তাহে সেখানে কাঁচা মরিচ বিক্রি হয়েছে ৬০ টাকা কেজি। বৃহস্পতিবারও বিক্রি হয়েছে ১৮০ টাকা কেজিতে। বিক্রেতারা বলছেন, বৃষ্টি হওয়ায় দেশের অনেক এলাকার মরিচক্ষেত নষ্ট হয়ে গেছে।

বিজ্ঞাপন

সরবরাহ কমে যাওয়ায় বাজারে দাম বেড়েছে।

শুধু কাঁচা মরিচ নয়, বৃষ্টিতে প্রভাব পড়েছে সবজির দামেও। বেশির ভাগ সবজির কেজিপ্রতি ৫-১০ টাকা বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে। শুক্রবার দিনাজপুরের বিভিন্ন কাঁচাবাজার ঘুরে দেখা যায় কাঁচা মরিচ ও বিভিন্ন সবজি বিক্রি হচ্ছে বেশি দামে।

দিনাজপুরের পাইকারি কাঁচা বাজার বাহাদুর বাজার। সেখানে ঘুরে দেখা যায়, প্রতি কেজি কাঁচামরিচ ১৩০ থেকে ১৫০ টাকা, করলা ২৫ টাকা, গোল বেগুন ২০ টাকা ও লম্বা বেগুন ১০ টাকা, পেঁপে ১২ টাকা, কচু ১৩ টাকা, কাঁকরোল ১৫ টাকা, ঢেঁড়স ১২ টাকা, পটোল ১৮ টাকা, চালকুমড়া ১২ থেকে ১৫ টাকা, মিষ্টিকুমড়া ১৫ টাকা, লাউ ২০ টাকা, বরবটি ২০ টাকা, টমেটো ১০০ টাকা, চিচিঙ্গা ১০ টাকা, ধুন্দল ও ঝিঙা ১০ টাকা, পুঁইশাক পাঁচ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

দিনাজপুর গোর-এ শহীদ বড় ময়দানের খুচরা বাজারে দেখা যায়, কাঁচা মরিচ প্রতি কেজি ২০০ টাকা, করলা ৪০ টাকা, পেঁপে ৩০ টাকা, কচু ৩০ টাকা, কাঁকরোল ৩০, ঢেঁড়স ২০ টাকা, পটোল ৩০ টাকা, চালকুমড়া ২৫ টাকা, মিষ্টিকুমড়া ২৫ থেকে ৩৫ টাকা, লাউ ৩০ টাকা, বরবটি ৪০ টাকা, চিচিঙ্গা ২০ টাকা, ধুন্দল ও ঝিঙা ২০ টাকা, পুঁইশাক ১০ টাকা, টমেটো ১৪০, কাঁচা কলা ১৫ ও শসা ৩০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

সবজি বিক্রেতা সুমিতা বালা বলেন, যেসব এলাকায় সবজি চাষ হয় এর বেশির ভাগ সবজিক্ষেত বৃষ্টির কারণে নষ্ট হয়ে গেছে।



সাতদিনের সেরা