kalerkantho

রবিবার । ১ কার্তিক ১৪২৮। ১৭ অক্টোবর ২০২১। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

এবারও ভিন্ন আবহে উদযাপিত ঈদুল আজহা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৪ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এবারও করোনার ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতার মধ্যেই সারা দেশে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে গতকাল বুধবার মুসলমানদের অন্যতম প্রধান ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদুল আজহা উদযাপিত হয়েছে। সংক্রমণ ঠেকাতে এবারও রাজধানীসহ দেশের বহু জায়গায় খোলা মাঠে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়নি, ঈদের জামাত হয়েছে মসজিদের ভেতরে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে মাস্ক পরে ও শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে নামাজ আদায় করেন মুসল্লিরা। ফলে ঈদের নামাজ শেষে চির পরিচিত দৃশ্য মুসল্লিদের হাত মেলানো ও কোলাকুলির দৃশ্য চোখে পড়েনি।

রাজধানীতে হাইকোর্টসংলগ্ন জাতীয় ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়নি। শত বছরের ঐতিহ্যবাহী ঐতিহাসিক শোলাকিয়া ময়দানেও ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হয়নি। বায়তুল মোকাররম মসজিদে ঈদের প্রথম ও প্রধান জামাত সকাল ৭টায় অনুষ্ঠিত হয়। এই জাতীয় মসজিদে প্রতিবছরের মতো এবারও ঈদের মোট পাঁচটি জামাত অনুষ্ঠিত হয়। নামাজ শেষে মোনাজাতে দেশ ও জাতির মঙ্গল কামনা করা হয়। পাশাপাশি বৈশ্বিক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও নিহতদের জন্য দোয়া করা হয়েছে। করোনা থেকে মুক্তির জন্য মুসল্লিরা আল্লাহর কাছে ফরিয়াদ করেন।

মহান আল্লাহর অপার অনুগ্রহ লাভের আশায় ঈদুল আজহার জামাত শেষে ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা সামর্থ্য অনুযায়ী পশু কোরবানি করেছেন। আত্মীয়-স্বজনদের কবর জিয়ারতও ছিল দিনটির আনুষ্ঠানিকতার অন্যতম অনুষঙ্গ।

সারা দেশে বিভাগ, জেলা, উপজেলা, সিটি করপোরেশন, পৌরসভা, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগ এবং সরকারি সংস্থাগুলোর প্রধানরা জাতীয় কর্মসূচির আলোকে নিজ নিজ কর্মসূচি প্রণয়ন করে ঈদ উদযাপন করেছেন।

রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ তাঁর পরিবারের সদস্য এবং কয়েকজন সিনিয়র সরকারি কর্মকর্তাকে সঙ্গে নিয়ে বঙ্গভবনের দরবার হলে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করেছেন।



সাতদিনের সেরা