kalerkantho

রবিবার । ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ৫ ডিসেম্বর ২০২১। ২৯ রবিউস সানি ১৪৪৩

মেরাদিয়ায় শর্ত ভেঙে বাসাবাড়ির সামনে পশুর হাট

শম্পা বিশ্বাস   

১৫ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



রাজধানীতে পশুর হাট ইজারা দেওয়ার সময় ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) অন্যতম শর্ত ছিল আবাসিক এলাকা বা লোকালয়ের মধ্যে হাট বসানো যাবে না। সেই শর্ত ভঙ্গ করেছেন মেরাদিয়া বাজারসংলগ্ন পশুর হাটের ইজারাদার। অন্যদিকে শর্ত ভেঙে নির্ধারিত সময়ের আগেই হাটে নিয়ে আসা হয়েছে কয়েক শ গরু।

ইজারার শর্তে আরো উল্লেখ রয়েছে, মূল সড়কের ওপর পশুর হাট বসানো যাবে না। সড়কের পাশের ফাঁকা জায়গায় হাট বসানো যাবে। এ নিয়মও ভঙ্গ করেছেন মেরাদিয়া পশুর হাটের ইজারাদার। মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে মেরাদিয়া পশুর হাটে গিয়ে দেখা গেছে, বনশ্রী এইচ ব্লকের প্রবেশ মুখে চলছে হাটের প্রস্তুতিমূলক কাজ। এই গেট দিয়ে হাতের বাঁয়ে প্রবেশ করলে সোজা জে, কে, এল, এম, এন ব্লক পর্যন্ত মূল রাস্তা চলে গেছে। এই রাস্তা ধরে সামনে এগোতেই উভয় পাশে চোখে পড়ে গরু বেঁধে রাখার বাঁশের সীমানাবেষ্টনী। কয়েকটি স্থানে এরই মধ্যে বেঁধে রাখা হয়েছে গরু। আবাসিক এলাকার এই রাস্তার উভয় পাশে সারি সারি বাড়ি। এসব বিবেচনায় না রেখেই ইজারাদার হাটের অংশ টেনে এনেছেন আবাসিক এলাকায়।

ওই এলাকার বাসিন্দা রবিন হোসেন বলেন, ‘প্রতিবছর বাসাবাড়ির সামনেই গরুর হাট বসায়। গরুর গোবর আর হাটের ময়লা-আবর্জনার কারণে বাসায় প্রবেশ এবং বের হওয়া রীতিমতো কষ্টকর। বর্তমানে করোনা সংক্রমণ ঊর্ধ্বমুখী। এ অবস্থায় হাটে বিপুলসংখ্যক মানুষের আসা-যাওয়া নিয়ে আমরা উচ্চ ঝুঁকির মধ্যে আছি।’

পশুর হাট বসানোর শর্তে আছে, কোরবানির ঈদের পাঁচ দিন আগে থেকে হাট বসানো যাবে। হাট শুরুর দুই দিন আগে ইজারাদাররা প্রস্তুতির কাজ করতে পারবেন। দেশে কোরবানির ঈদ আগামী ২১ জুলাই। সেই হিসাবে ১৭ জুলাই থেকে ইজারাদারদের পশুর হাট বসানোর কথা। আর ১৫ জুলাই থেকে হাটের প্রস্তুতিমূলক কাজ শুরুর কথা।

মঙ্গলবার রাতে মেরাদিয়া হাট ঘুরে দেখা গেছে, গরু বেঁধে রাখতে এরই মধ্যে বাঁশ দিয়ে সীমানাবেষ্টনী তৈরি হয়ে গেছে। সেখানে প্রস্তুতিমূলক কাজের তদারকি করছিলেন মুকুল হোসেন। কালের কণ্ঠকে তিনি বলেন, ‘মোটামুটিভাবে আমাদের প্রস্তুতি শেষ।’

লোকালয়ে পশুর হাট বসানোয় সিটি করপোরেশনের নিষেধ রয়েছে, এ কথা বলতেই ওই হাটের ইজারা কমিটির সদস্য নাঈম কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘মুখের জবান আর হাতের লেহা যদি এক লগে মিলা যাইতো; তাইলে তো আমাদের দেশটা অনেক উন্নত হইতো।’

ডিএসসিসির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদ আহাম্মদ কলের কণ্ঠকে বলেন, ‘আমাদের কাছেও অভিযোগ এসেছে কোথাও কোথাও বাড়িঘরের সামনে চলে গেছে হাটের কিছু অংশ। আমাদের দুজন নির্বাহী দক্ষিণের ১১টি হাটে কাজ শুরু করেছেন। আমরা এ-ও অভিযোগ পেয়েছি, কোথাও কোথাও বাড়ির সামনে বসানো হয়েছে মাইক। এসব তদারকি করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’



সাতদিনের সেরা