kalerkantho

বুধবার । ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ৮ ডিসেম্বর ২০২১। ৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

স্কুল মাঠে বিয়ের অনুমতি না দেওয়ায় শিক্ষককে অপমান

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

৫ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চট্টগ্রাম মহানগরীর ডবলমুরিং থানায় বিদ্যালয়ের মাঠে বিয়ের অনুষ্ঠানের অনুমতি না দেওয়ায় এক প্রধান শিক্ষককে অপমান করার অভিযোগ উঠেছে। মনসুরাবাদ এলাকার খান সাহেব আব্দুল হাকিম উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে লাঞ্ছিত করার এ ঘটনায় করা মামলায় একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গত বুধবার এ ঘটনা ঘটে এবং মামলা করা হয় শনিবার রাতে। এর পরই আসামি চট্টগ্রাম মহানগর যুবদলের সহসভাপতি মিয়া মো. হারুন খানকে গ্রেপ্তার করা হয়। ডবলমুরিং থানার ওসি মোহাম্মদ মহসিন জানান, বিদ্যালয়ের ব্যবস্থাপনা কমিটির অভিভাবক সদস্য মো. একরাম মিয়া তাঁর মেয়ের বিয়ের অনুষ্ঠানের জন্য প্রধান শিক্ষক মো. নিজাম উদ্দিনের কাছে অনুমতি চান। কিন্তু এ সময় বিদ্যালয় বন্ধ থাকায় তিনি অনুমতি দেননি। পরে গত ২৫ জুন বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। খবর পেয়ে জেলা প্রশাসনের একজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট অভিযান চালিয়ে বিয়ে বন্ধ করে দেন। এ কারণে প্রধান শিক্ষকের ওপর ক্ষুব্ধ হয়ে তাঁকে হুমকি দেওয়া হয়। হুমকি পেয়ে নিজাম উদ্দিন শিক্ষা বোর্ডে অভিযোগ করেন। অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে বুধবার একটি তদন্ত কমিটি বিদ্যালয়ে তদন্ত করতে যায়। ওই কমিটির সামনেই প্রধান শিক্ষককে অকথ্য ভাষায় গালাগাল ও হত্যার হুমকি দেওয়া হয়। পরে মামলা করা হলে পুলিশ হারুনকে গ্রেপ্তার করে। অন্য আসামি জানে আলম, মো. মাসুদ, প্রিন্স ও আল নাহিয়ান পলাতক।



সাতদিনের সেরা