kalerkantho

মঙ্গলবার । ১০ কার্তিক ১৪২৮। ২৬ অক্টোবর ২০২১। ১৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

গার্ড অব অনার প্রদানে নারী না রাখার প্রস্তাব চ্যালেঞ্জ করে রিট

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৬ জুন, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মৃত্যুবরণকারী মুক্তিযোদ্ধাকে সম্মান জানাতে তাঁর কফিনে ‘গার্ড অব অনার’ দেওয়ার সময় নারী উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) না রাখার বিষয়ে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির প্রস্তাবের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট আবেদন দাখিল করা হয়েছে। এ রিট আবেদনের ওপর শুনানি চার সপ্তাহের জন্য মুলতবি করেছেন হাইকোর্ট।

বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মো. কামরুল হোসেন মোল্লার হাইকোর্ট বেঞ্চ এই রিট আবেদনের ওপর শুনানি মুলতবি করেন। মানবাধিকার সংগঠন ফাউন্ডেশন ফর ল’ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্টের (এফএলএডি) আইন ও গবেষণা বিভাগের পরিচালক ব্যারিস্টার কাজী মারুফুল আলম এ রিট আবেদন দাখিল করেন। রিট আবেদনে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির চেয়ারম্যান, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় সচিবসহ তিনজনকে বিবাদী করা হয়েছে। আবেদনে সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সুপারিশ কেন বৈষম্যমূলক, বেআইনি ও অবৈধ ঘোষণা করা হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারির আরজি জানানো হয়েছে। আদালতে রিট আবেদনকারী পক্ষে আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকেট ফাওজিয়া করিম ফিরোজ। 

গতকাল শুনানিকালে আদালত বলেন, বিষয়টি সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সুপারিশ মাত্র। এমন সুপারিশ গেজেট আকারে প্রকাশিত হলে তখন এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় আদেশ দেওয়া হবে। তাই সে পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে।

এ সময় অ্যাডভোকেট ফাওজিয়া করিম আদালতকে বলেন, সংসদীয় স্থায়ী কমিটি এমন সব সিদ্ধান্ত দিচ্ছে, যা শুনলে মনে হয় তারা ফতোয়া দিচ্ছে। দিনে দিনে তারা ফতোয়া দেওয়া কমিটিতে পরিণত হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, মৃত্যুবরণকারী মুক্তিযোদ্ধাকে ‘গার্ড অব অনার’ দেওয়ার সময় যেসব এলাকায় নারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রয়েছেন, সেখানে বিকল্প খোঁজার সুপারিশ করে সংসদীয় কমিটি।



সাতদিনের সেরা