kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২১ শ্রাবণ ১৪২৮। ৫ আগস্ট ২০২১। ২৫ জিলহজ ১৪৪২

ন্যাশ ডের ওয়েবিনার

দেশের চার কোটি মানুষের ফ্যাটি লিভার

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১১ জুন, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাংলাদেশে ৩২ থেকে ৩৫ শতাংশ বা প্রায় চার কোটি মানুষ ফ্যাটি লিভারে আক্রান্ত। আবার ফ্যাটি লিভারে আক্রান্তদের মধ্যে ৩৬ থেকে ৫৪ শতাংশ মানুষ অস্বাস্থ্যকর খাবারজনিত লিভারের রোগ বা নন-অ্যালকোহলিক স্টিয়েটোহেপাটাইটিসে (ন্যাশ) আক্রান্ত হয়ে পড়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার ‘ইন্টারন্যাশনাল ন্যাশ ডে’ উপলক্ষে আয়োজিত এক ওয়েবিনারে এসব তথ্য জানানো হয়।

বিকন ফার্মাসিউটিক্যালসের সহযোগিতায় বাংলাদেশ ফোরাম ফর দ্য স্ট্যাডি অব দ্য লিভারের উদ্যোগে এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান। এ ছাড়া সংসদ সদস্য ও বিকন ফার্মাসিউটিক্যালসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ এবাদুল করীম এতে উপস্থিত ছিলেন।

ওয়েবিনারে বিশেষজ্ঞরা তৈলাক্ত ও চর্বিযুক্ত খাবারকে এই রোগের জন্য দায়ী করেন। এসব খাবার থেকে ফ্যাটি লিভার ছাড়াও লিভার সিরোসিস ও লিভার ক্যান্সার হতে পারে। ন্যাশ বিশ্বব্যাপী এখন মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়ছে। বাংলাদেশেও এর বিস্তার ঘটছে। ডা. মুরাদ হাসান বলেন, ‘ফ্যাটিলিভারের বিপদ থেকে রক্ষা পেতে জনসচেতনতার কোনো বিকল্প নেই।  মানুষকে এর ভয়াবহতা জানাতে হবে।’

মোহাম্মদ এবাদুল করীম বলেন, ‘সময়মতো ন্যাশ ধরা গেলে দেশেই এর উন্নত চিকিৎসা ও ওষুধ রয়েছে।’

বাংলাদেশ ফোরাম ফর দ্য স্ট্যাডি অব দ্য লিভারের সভাপতি ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের হেপাটোলজি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. মামুন আল মাহতাব স্বপ্নীলের সঞ্চালনায় এ ওয়েবিনারে আরো আলোচনা করেন নাট্যব্যক্তিত্ব ও সম্প্রীতি বাংলাদেশের সভাপতি পিযূষ বন্দ্যোপাধ্যায়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান খানান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ওষুধ প্রযুক্তির অধ্যাপক আ ব ম ফারুক।



সাতদিনের সেরা