kalerkantho

সোমবার । ৫ আশ্বিন ১৪২৮। ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১২ সফর ১৪৪৩

ইসির অসদাচরণ ও দুর্নীতি

রাষ্ট্রপতিকে দেওয়া চিঠির সমর্থনে গণস্বাক্ষর শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১০ জুন, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নির্বাচন কমিশনের (ইসি) বিরুদ্ধে অসদাচরণ ও দুর্নীতির অভিযোগ তদন্তে সুপ্রিম জুডিশিয়াল কাউন্সিল গঠনের আবেদন জানিয়ে রাষ্ট্রপতির কাছে দেওয়া দেশের বিশিষ্ট ৪২ জন নাগরিকের চিঠির সমর্থনে গণস্বাক্ষর কর্মসূচি শুরু হয়েছে। নাগরিক সংগঠন সুশাসনের জন্য নাগরিকের (সুজন) উদ্যোগে গতকাল বৃধবার সকালে এই অনলাইন গণস্বাক্ষর কর্মসূচির উদ্বোধন করা হয়েছে। কমিউনিটি পিটিশন পরিচালনাকারী আন্তর্জাতিক সংগঠন আভাজের মাধ্যমে সুজনের এই গণস্বাক্ষর কর্মসূচি পরিচালিত হচ্ছে।

সুজন সভাপতি সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা এম হাফিজউদ্দিন খানের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সুজন সম্পাদক ড. বদিউল আলম মজুমদার ও অধ্যাপক সি আর আবরারসহ সুজনের জাতীয়, কেন্দ্রীয় এবং দেশের বিভিন্ন এলাকার স্থানীয় কমিটির নেতারা। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন সুজন কেন্দ্রীয় সমন্বয়কারী দিলীপ কুমার সরকার।

অনুষ্ঠানে এম হাফিজউদ্দিন খান বলেন, ‘কমিশনের বিরুদ্ধে সুপ্রিম জুডিশিয়াল কাউন্সিল গঠন করে তদন্ত করার জন্য আমরা চিঠি দিয়েছিলাম। আমরা কোনো সাড়া পাইনি। তবে আমাদের চেষ্টা অব্যাহত থাকবে। তারই পরবর্তী পদক্ষেপ হিসেবে আমাদের এই কর্মসূচি।’

বদিউল আলম মজুমদার বলেন, ‘অতীতেও কমিশন অনেক কারসাজি করেছে। কিন্তু এই কমিশনের বিরুদ্ধে নির্বাচনসংক্রান্ত গুরুতর অসদাচরণের পাশাপাশি নজিরবিহীন দুর্নীতির অভিযোগও উঠেছে। এরই পরিপ্রেক্ষিতে আমরা রাষ্ট্রপতির কাছে দুইটি চিঠি পাঠাই। দুঃখজনক হলো, আমরা রাষ্ট্রপতির পক্ষ থেকে প্রাপ্তি স্বীকারের স্বীকৃতিমূলক সৌজন্যতাটুকুও পাইনি। অন্য অনেক বিষয়ের ভিড়ে এটি হারিয়ে গেলেও গুরুত্বপূর্ণ এই ইস্যু শুধু সামনে আনাই দরকার না, নাগরিকদেরও এর পক্ষে সোচ্চার হওয়া প্রয়োজন।’

দিলীপ কুমার সরকার বলেন, ‘নাগরিকদের রাষ্ট্রপতি বরাবর চিঠি দেওয়াটা একটি আলোচিত ঘটনা ছিল। রাষ্ট্রপতি আবেদনে সাড়া দেননি। এ কারণে এই যৌক্তিক দাবির প্রতি যে সারা দেশের সচেতন নাগরিকদের সমর্থন আছে সেটা জানান দেওয়ার জন্যই এই উদ্যোগ।’



সাতদিনের সেরা